Category Archives for BCS Job Preparation

বিসিএস লিখিত প্রস্তুতি: বাংলা | সুজন দেবনাথ

পছন্দের ক্যাডার পেতে হলে আপনাকে একেবারে ১ম দিকে থাকতে হবে। অন্যদের পেছনে ফেলতে হবে। সেজন্য মূলমন্ত্র হলো – অন্যদের চেয়ে এগিয়ে যাবার পথগুলো খুঁজে বের করা – প্রতিটা সাবজেক্টে। রিটেনের উত্তরপত্র দেখবেন ঐ বিষয়ের কোন শিক্ষক। তো আমার স্ট্রাটেজি হল – উত্তরে এমন কিছু থাকতে হবে যেন শিক্ষক মনে করেন, এটা তাঁর সাবজেক্টের কোন স্টুডেন্টের খাতা। মানে খাতা দেখে বাংলার শিক্ষক ভাববেন -এতো বাংলার স্টুডেন্ট, ইংরেজির শিক্ষক ভাববেন –এ যে ইংরেজীর স্টুডেন্ট, আবার বিজ্ঞানের শিক্ষকও ভাববেন –এ বিজ্ঞানের স্টুডেন্ট না হয়ে যায় না। এই ধারনা যেই বিষয়ের শিক্ষককে দিতে পারবেন, অবশ্যই আপনি সেই বিষয়ে অন্যদের চেয়ে এগিয়ে যাবেন। তো ভাবছেন যে, এতো ভয়ানক কঠিন কাজ!! সব সাবজেক্টে এটা করতে হলে তো এরিস্টোটল হওয়া লাগবে! না লাগবে না। আপনি মিস্টার সুমন বা মিজ সুমনা হয়েই প্রতিটি সাবজেক্টে এটা করতে পারবেন। চলুন দেখি কিভাবে –

আজ শুধু বাংলার কথা বলবঃ

(১) চোখ বন্ধ করে একটু ভাবুন – আপনি বাংলার শিক্ষক, আপনি পরীক্ষার খাতা দেখছেন; এখন খাতায় কি থাকলে আপনি কনভিন্স হবেন যে এটা বাংলার স্টুডেন্টের খাতা? এর উত্তর হলো – সাহিত্যিক ভাষা, আনকমন ও সঠিক উদ্ধৃতি (Quotation), বই/সাহিত্য পত্রিকার নাম, চরিত্রের নাম ইত্যাদি। তাই এগুলো থাকতে হবে আপনার বাংলা পরীক্ষার লেখায়। আপনার লেখার ভাষা দেখেই বাংলার শিক্ষক বুঝে ফেলবেন, আপনি বাংলার স্টুডেন্ট কিনা। তাই অন্তত শুরু ও শেষে অবশ্যই সুন্দর ভাষা (সাহিত্যিক ভাষা) ব্যবহার করার কথা ভাবুন।আপনি সাহিত্যিক ভাষা জানেন না? কোন সমস্যা নেই। পত্রিকার সাহিত্য পাতা থেকে সাহিত্য সমালোচনা মূলক ৪/৫ টা লেখা সংগ্রহ করুন।কয়েকবার পড়ুন, কিছু প্রতীকয়াশ্রয়ী লাইনে দাগ দিয়ে রাখুন।যে কোন টপিক নিয়ে লিখার সময় ঐ রকম লাইন লিখতে চেষ্টা করুন, কয়েকদিন চেষ্টা করলেই হয়ে যাবে।

(২) এবার সিলেবাস আর ৩৫তম বিসিএসের প্রশ্ন অনুযায়ী বাংলার বিষয়গুলো দেখিঃ

ব্যাকরণঃ (৩০ নম্বর) ক) শব্দগঠন, খ) বানান/ বানানের নিয়ম, গ) বাক্যশুদ্ধি/ প্রয়োগ-অপপ্রয়োগ, ঘ) প্রবাদ-প্রবচনের নিহিতার্থ প্রকাশ, ঙ) বাক্যগঠন: ৩৫ তম বিসিএসের প্রশ্নে এই অংশের লক্ষ্যণীয় বিষয় হচ্ছে – কোন অপশন নেই। সবগুলোই উত্তর করতে হবে। তাই ব্যাকরণে গুরুত্ব দিতে হবে। সিলেবাসের সম্ভাব্য সব কিছু দেখে ফেলতে হবে।

বইঃ এই অংশের জন্য আগের বছরের প্রশ্ন (বাজারের যে কোন গাইড), নবম-দশম শ্রেনীর বাংলা ব্যাকরণ বই , ইন্টার-মিডিয়েটের যে কোন বাংলা ব্যাকরণ বই (আপনি যেটা তখন পড়েছেন সেটাতেই চলবে)। ব্যাকরণের কী পড়বেন?

  • ক) শব্দগঠনঃ নবম-দশম শ্রেনীর বাংলা ব্যাকরণ বই থেকে (শব্দের অধ্যায়গুলো – মানে উৎপত্তি অনুসারে, গঠন অনুসারে আর অর্থ অনুসারে শব্দ, উপসর্গ, বচন, সমাস, প্রত্যয়, সন্ধি) এগুলো দেখতে হবে।
  • খ) বানান/ বানানের নিয়মঃ বানানের জন্য বাংলা একাডেমীর প্রমিত বাংলা বানানের নিয়ম, আগের কয়েক বছরের প্রশ্নের বানানশুদ্ধি দেখুন।
  • গ) বাক্যশুদ্ধি/ প্রয়োগ-অপপ্রয়োগঃ বাক্যশুদ্ধি/ প্রয়োগ-অপপ্রয়োগ আগে রিটেনের সিলেবাসে ছিল। তাই আগের বছরের প্রশ্ন থেকে দেখুন আর শুদ্ধ হবার নিয়ম বুঝে শিখুন, তাতে অন্যরকম আসলেও উত্তর করা যাবে।
  • ঘ) প্রবাদ-প্রবচনের নিহিতার্থ প্রকাশঃ প্রবাদ-প্রবচনের নিহতার্থ সুন্দর সাহিত্যিক ভাষায় ব্যাখ্যা করুন।
  • ঙ)বাক্যগঠনঃ নবম-দশম শ্রেনীর বাংলা ব্যাকরণ বই থেকে (বাক্যের অধ্যায়গুলো – আকাঙ্ক্ষা, আসত্তি, যোগ্যতা, বাক্য পরিবর্তন, বাগধারা, বাক্যের শ্রেণিবিভাগ) এগুলো দেখতে হবে।

 

ভাব-সম্প্রসারণ (২০ নম্বর):

  • ভাব সম্প্রসারণের বাক্যটি অপিরিচিত হলে কয়েকবার পড়ুন, প্রতিটি শব্দে জোর দিয়ে পড়ুন।
  • তারপর মূলভাবটা মাথায় আনুন।
  • সেটি কিভাবে সাজাবেন প্লান করুন।
  • এরপর সুন্দর সাহিত্যিক ভাষায় লিখুন।
  • এলোমেলো কথা না লিখে, প্রশ্নের বিষয়টা নিয়ে ৫/৬ প্যারায় লিখে ফেলুন।
  • কোটেশান, উদাহরণ, ডেটা এসব দেয়া যায়।

সারমর্ম(২০ নম্বর):

  • যেটির সারমর্ম করতে হবে সেটির তিন ভাগের এক ভাগের চেয়ে বেশি কিছুতেই নয়।
  • ৩/৪ টা বাক্যেই শেষ হবার কথা।
  • সময় নিয়ে করুন।
  • প্রশ্নের অংশটা কয়েকবার পড়ে আসল বক্তব্য খুঁজে তাতে দাগ দিন।
  • সেই আসল বক্তব্যটি নিজের ভাষায় লিখুন।
  • একটি বাক্যও যেন প্রশ্নের কোন বাক্যের সাথে হুবহু মিলে না যায়।
  • কোন উদাহরণ দেয়া যাবে না।

সাহিত্যঃ

এই ৩০ নম্বরে আপনি চেষ্টা করলে অন্যদের চেয়ে ৫-১০ নম্বর বেশি পেতে পারেন। সাহিত্যের প্রশ্নগুলো এক কথায় উত্তর করবেন না। এখানে উদ্ধৃতি, বইয়ের নাম, চরিত্রের নাম এসব দিয়ে লিখতে চেষ্টা করুন। এজন্য সৌমিত্র শেখরের ‘জিজ্ঞাসা’ বইটিতেই চলবে। আগের প্রশ্ন দেখে প্রশ্নের ধারনা নিন। এরপর সৌমিত্র শেখরের ‘জিজ্ঞাসা’ থেকে আগের প্রশ্ন যেসব বিষয় থেকে এসেছে সেগুলো দাগ দিয়ে দিয়ে পড়ুন – যেন ২য় বার পড়ার সময় শুধু দাগ দেয়া অংশগুলো দেখলেই হয়। এটা একটু কষ্টকর, কিন্তু যারা এই কষ্টটা করবেন, তাঁরা বাংলাতে অন্যদের চেয়ে ভালো করবেন। এখানে সাহিত্যের জন্য কিছু টপিক দিয়ে দিচ্ছি (এই টপিকগুলো বাংলা প্রোফেশনাল ক্যাডারদের জন্য সিলেবাসে উল্লেখ করা আছে, তাই মনে হয় এগুলো বেশি ইম্পরটেন্ট)

– চর্যাপদ, বড়ূচন্ডীদাস, শাহ্ মুহম্মদ সগীর, শ্রীকৃষ্ণকীর্তণ, বৈষ্ণব পদাবলী, আরাকান রাজসভা, সৈয়দ সুলতান, কৃত্তিবাস, দৌলত উজির বাহরাম খান, মুকুন্দরাম চক্রবর্তী, কাশীরাম দাস, আলাওল, আবদুল হাকিম, ভারতচন্দ্র রায়গুণাকর, শাহ্ মুহম্মদ গরীবুল্লা, আরাকান রাজসভা কেন্দ্রিক বাংলা সাহিত্য, ময়মনসিংহ গীতিকা, ঈশ্বরচন্দ্র গুপ্ত, ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর, মধুসূদন দত্ত, বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়, মীর মশাররফ হোসেন, কায়কোবাদ, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, প্রমথ চৌধুরী, শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়, নজিবর রহমান সাহিত্যরত্ন, জীবনানন্দ দাস, কাজী নজরুল ইসলাম, ফররুখ আহমদ, জসীম উদ্দীন, মাইকেল মধুসূদন দত্ত, বিহারীলাল চক্রবর্তী, প্রমথ চৌধুরী, দীনবন্ধু মিত্র আর সেই সাথে স্বাধীনতা পরবর্তী বাংলাদেশের কয়েকজন কবি সাহিত্যিক ।

 

অনুবাদ (১৫ নম্বর):

ভালো অনুবাদ করতে পারলে এখানেও এগিয়ে যাওয়া সম্ভব। এটাতে সময় দিন। এজন্য আমি যেটা করতামঃ

  • বাংলা ও ইংরেজি দুই অনুবাদের জন্যই আমি প্রথমে রাফ করে সেটা ইচ্ছামত কাটাকুটি করে ফাইনাল করতাম।
  • প্রথমে বড় বড় ইংরেজি বাক্যের বড় বড় বাংলা বাক্য বানাইতাম।
  • তারপর এই বাংলা বড় বাক্যটিকে ভেঙে যথাসাধ্য সাহিত্যিক ভাষায় ছোট ছোট বাক্য ভেঙে ফেলতাম।
  • তাই বড় বড় ইংরেজি বাক্য দেখে ভয় পাবার কিছু নেই।
  • একটা ইংরেজি বাক্যকে ভেঙে ২/৩ টা বাংলা বাক্য করলেও সমস্যা নেই।
  • আর একটা বড় বাক্য রাখলেও চলে।
  • ভাষাটা ভালো হওয়া উচিত।
  • আগের প্রশ্ন নিজে নিজে প্রাকটিস করুন।
  • ইংরেজি পত্রিকা দেখতে পারেন।

গ্রন্থ সমালোচনা (১৫ নম্বর):

বিখ্যাত এবং পরিচিত বইয়ের সমালোচনাই দেয়। অপশন থাকবে বলে মনে হয় – ৩৫ তম তে ২টা থেকে ১টা ছিল। এজন্য সৌমিত্র শেখরের ‘জিজ্ঞাসা’ বইটিতে প্রতিটি লেখকের কয়েকটা বই নিয়ে আলচনা আছে। এগুলো দাগ দিয়ে দিয়ে পড়া যেতে পারে। সমালোচনার জন্যঃ

  1. গ্রন্থের চরিত্র,
  2. থিম / পটভূমি আব বিষয়বস্তু
  3. এটি কি?
  4. উপন্যাস/প্রবন্ধ/ছোটো গল্প সেটি উল্লেখ করতে ভুলবেন না।
  5. উপন্যাস হলে সামাজিক/ঐতিহাসিক/কাব্যিক
  6. বইটি সফল/বিফল,
  7. নামকরণ যথার্থ কিনা
  8. বইটি কি কালজয়ী? মানে এখনো মানুষ পড়ে বা ভবিষ্যতেও পড়োবে কিনা
  9. এসব কথা দিয়ে লিখুন।

 

কাল্পনিক সংলাপ (১৫ নম্বর):

  • সংলাপের পাত্র-পাত্রী খেয়াল করতে হবে।
  • বাংলা সংলাপে সম্বোধন গুরুত্বপূর্ণ। তাই কার-কার সাথে সংলাপ সেটা খেয়াল করুন ভালো করে, সেভাবে কয়েকটা সম্বোধন ব্যবহার করুন।
  • সংলাপ অনেক টাইপের হতে পারে – ব্যক্তিগত (বন্ধু/সহপাঠী),পারিবারিক (মা-বাবা, ভাই-বোন), অফিশিয়াল (সিনিয়র/জুনিয়র/কলিগ/সেবাপ্রার্থী/শিক্ষক), সেমিনার/কনফারেন্স সংলাপ (সাম্প্রতিক বিষয়), রাজনৈতিক (কোন সংগঠনের নেতা) ইত্যাদি।
  • সংলাপের ভাষা প্রমিত বাংলাই হওয়া উচিত। বর্তমানে টিভি নাটকের হিং-চিং বাংলা নয়।
  • যে বিষয়ে সংলাপ, সেই “আসল কথাটা” যেন মুখের ভাষায় শ্রোতার কাছে বলছেন। মনে মনে ভাবুন, আসলেই আপনি এই সংলাপটা করছেন – অার সেটাই লিখে ফেলুন।

পত্র লিখন (১৫ নম্বর):

  1. ফরমেট/নিয়ম-কানুন মেনে লিখুন।
  2. সৌমিত্র শেখরের ‘বাংলা দর্পন’ ফলো করতে পারেন।
  3. ব্যক্তিগত পত্র বা মানপত্র লিখলে সেটাতে মনের মাধুরী দিয়ে সাহত্যিক চিঠি বানিয়ে ফেলুন।
  4. দরখাস্ত/নিমন্ত্রণ/ব্যবসা-পত্র লিখলে ফরমেট সঠিক যেন হয়।
  5. খাম দিয়া উচিত।

রচনাঃ

  • এতে ৪০ নম্বর, তাই ভালো আর মোটামুটি লিখার মধ্যে ৫-১০ নম্বর vary করতে পারে। তাই প্লান করে লিখুনঃ
  • প্রবন্ধ রচনার জন্য দুইটা বিষয়ঃ ভাষা এবং ইনফরমেশান। তাই ভালো ভাষা আর বেশি বেশি তথ্য।
  • শুরু আর শেষে যথাসাধ্য সুন্দর, সাহিত্যিক ভাষা ব্যবহার করুন।
  • কি কি পয়েন্ট লিখবেন সেটার একটা রাফ করতে পারেন।
  • যত বেশি সম্ভব লিখুন, সময়ে যা ধরে।
  • Definition দিতে পারেন। কোন বিখ্যাত ডিকশনারির ডেফিনেশান, বা বিখ্যাত পণ্ডিতের ডেফিনেশান। বানিয়ে দিবেন না। মূলভাব ঠিক রেখে ইংরেজি থেকে বাংলা করে দিতে পারেন কিন্তু পুরোপুরি বানিয়ে দিলে ধরে ফেলবে।
  • কোটেশান, ডেটা, উদাহরণ, রিপোর্ট এসব যথাসাধ্য বেশি ব্যবহার করুন। তবে বানিয়ে কোটেশান দিবেন না। এগুলো সহজেই ধরে ফেলা যায়। তাতে বুমেরাং হবে।
বাংলার ২০০ নাম্বারের জন্য যে গাইডের মত লিখবে আর যে নিজে সাহিত্যিক ভাষায় লিখবে তাঁদের মধ্যে ৩০-৪০ নম্বর পার্থক্য হওয়াও খুবই সম্ভব। তাই সাহিত্যিক ভাষায় লিখার চেষ্টা করুন। নিজের মত করে শুরুতেই প্রমাণ দিন – আপনি স্পেশাল। . //অগ্রজের অগ্রিম শুভকামনা

বাংলাদেশ ও আন্তর্জাতিক বিষয়বলী । সাম্প্রতিক তথ্য SEP 2016

বাংলাদেশ ও আন্তর্জাতিক বিষয়বলীর সাম্প্রতিক তথ্য ২০১৫ থেকে ২০১৬ পর্ব ০৩

বাংলাদশে ও আর্ন্তজাতকি বষিয়বলীর সাম্প্রতকি তথ্য ২০১৫ থকেে ২০১৬ র্পব ০৩

বাংলাদশে ও আর্ন্তজাতকি বষিয়বলীর সাম্প্রতকি তথ্য ২০১৫ থকেে ২০১৬ র্পব ০৩

  1. সম্প্রতি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রনালয়কে কোন দুটি বিভাগে ভাগ করা হয়েছে?
    ANSWER: জননিরাপত্তা বিভাগ ও সুরক্ষা বিভাগ।
    HINTS: (জুন ১, ২০১৬ তারিখে) স্বরাষ্ট্র মন্ত্রনালয়কে ভাগ করে দুটি বিভাগ করা হয়েছে- একটি জননিরাপত্তা বিভাগ এবং অন্যটি সুরক্ষা সেবা বিভাগ। জননিরাপত্তা বিভাগের অধীনে রাজনৈতিক ও আইসিটি, পুলিশ, আনসার ও সীমান্ত , আইন ও শৃঙ্খলা, প্রশাসন ও অর্থ এবং উন্নয়ন বিভাগ রয়েছে। এবং সুরক্ষা সেবা বিভাগের অধীনে নিরাপত্তা ও এনটিএমসি (ন্যাশনাল টেলিকম মনিটরিং সেন্টার), অগ্নি ও মাদকদ্রব্য, আইন ও শৃঙ্খলা, বহিরাগমন, কারা ও সমন্বয়, প্রশাসন ও অর্থ এবং উন্নয়ন বিভাগ থাকবে।
  2. বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘতম এবং গভীরতম সুড়ঙ্গ রেলপথ বা টানেল-
    ANSWER: গথার্ড বেস টানেল, সুইজারল্যান্ড।
    HINTS: বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘতম এবং গভীরতম সুড়ঙ্গ রেলপথথ বা টানেল-সুইজারল্যান্ড গথার্ড বেস টানেল। এই বিষ্ময়কর টালেটির নির্মাণ কাজ শুরু হয়েছিল ২০০০ সালে। আল্পস পর্বতমালায় নির্মিত গথার্ড বেস টানেল নামের পাতাল রেলপথটি ৫৭ কিলোমিটার লম্বা। এতদিন বিশের দীর্ঘতম সুড়ঙ্গপথের রেকর্ডটি ছিল জাপানের সেইকান টানেলের, যার দৈর্ঘ্য গথার্ড বেস টানেল এর চেয়ে তিন কিলোমিটার কম। এই টানেলের ভেতর দিয়ে দিনে ৩২৫টি যাত্রীবাহী ও মালবাহী ট্রেন চলাচল করবে। প্রতিটি ট্রেন ঘন্টায় ২৪১ কিলোমিটার বেগে মাত্র ২০ মিনিটে ওই সূড়ঙ্গপথ অতিক্রম করবে।
  3. ইউয়েফা চ্যাম্পিয়ান্স লিগ-২০১৫-১৬ মৌসুমের চ্যাম্পিয়ান দল–
    ANSWER: রিয়াল মাদ্রিদ।
    HINTS: অ্যাতোলেতিকো মাদ্রিদকে টাইব্রেকাওে ৫-৩ গোলে হারিয়ে ১১ বারেরর মতো ইউয়েফা চ্যাম্পিয়ান্স লিগ ২০১৫-১৬ মৌসুমের শিরোপা জিতেছে রিয়াল মাদ্রিদ। গত বছরের চ্যাম্পিয়ান দল বার্সেলোনা।
  4. ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগ (ওচখ) এর নবম আসরের সেরা উদীয়মান খেলোয়াড় কে হয়েছেন?
    ANSWER: মুস্তাফিজুর রহমান, বাংলাদেশ।
    HINTS: ২০১৬ সালের ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগ (ওচখ) এর নবম আসরের চ্যাম্পিয়ান হয়েছে-সানরাইজ হায়দারবাদ। ফাইনালে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরু কে ৮ রানে হারিয়ে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগ (ওচখ) ক্রিকেটে প্রথমবারের মতো চ্যাম্পিয়ান হয়েছে সানরাইজ হায়দারবাদ। ম্যাচ সেরা হন বেন কাটিং। টুনার্মেন্ট সেরা হয়েছেন বিরাট কোহলী। আর আসরটির সেরা উদীয়মান খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন মুস্তাফিজুর রহমান। সানরাইজ হায়দারবাদ এর হয়ে ১৬ ম্যাচে নিয়েছেন ১৭ উইকেট এবং অভার প্রতি রান দিয়েছেন ৬.৯০।
  5. জাতিসংঘ “এল নিনো ও জলবায়ূ বিষয়ক” বিশেষ দূত হিসেবে নিয়োগ দিয়েছে——
    ANSWER: মেরি রবিনসন ও ম্যাকারিয়া কামু।
    HINTS: সাবেক আইরিশ প্রেসিডেন্ট মেরি রবিনসন ও কেনিয়ার ক’টনীতিক ম্যাকারিয়া কামুকে “এল নিনো ও জলবায়ূ বিষয়ক” বিশেষ দূত হিসেবে নিয়োগ দিয়েছেন জাতিসংঘ মহাসচিব বান-কি-মুন। “এল নিনো” প্রকৃতিতে ক্ষতিকর প্রভাব ফেলে এবং খরা ও বন্যার সৃষ্টি করে। প্রতি দুই থেকে সাত বছরে এল নিনো সৃষ্টি হয়। এল নিনোর ক্ষতিকর প্রভাব দেখা যায় সুদানের মত দেশগুলোর বিভিন্ন স্থানে।
  6. জি-৭ এর ৪২তম শীর্ষ সম্মেলন কোথায় অনুষ্ঠিত হয়?
    ANSWER: জাপানে।
    HINTS: জি-৭ এর ৪২তম শীর্ষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়- জাপানের ইসে শীমায়। জি-৭ এর ৪১তম সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয় জার্মানিতে। জি-৭ এর বর্তমান সদস্য-কানাড, ফ্রান্স, জার্মানি, ইতালি, জাপান, যুক্তরাজ্য ও যুক্তরাষ্ট্র।
  7. সম্প্রতি নাসার এক গবেষণার ফলাফল অনুযয়ী, বজ্রপাতের নতুন ‘হটস্পট’-
    ANSWER: ভেনুজুয়েলার মারকাইবো হ্রদ।
    HINTS: বিশ্বের সবচেয়ে বজ্রপাত প্রবণ এলাকা ভেনুজুয়েলার মারকাইবো হ্রদ। পৃথিবীর কক্ষপথে নাসার স্থাপিত আবহাওয়া স্যাটেলাইটের লাইটেনিং ইমেজিং সেন্সর থেকে ১৬ বছর ধওে পাওয়া তথ্যে দেখা গেছে, প্রতিবছর হ্রদটির প্রতি বর্গকিলোমিটার এলাকার উপর গড়ে ২৩৩ টি বজ্রপাত হয়। গবেষণা ফলাফলে জানানো হয়েছে, সাগর ও পর্বত উপতক্যা থেকে প্রবাহিত বায়ূ মারকাইবো হ্রদের উষ্ণ পানির উপরিভাগে জড়ো হয়ে প্রতিবছর গড়ে ২৯৭ দিন-রাত্রিকালীন বজ্রঝড় সৃষ্টি করে।
  8. বিখ্যাত ‘বেগম’ পত্রিকার সম্পাদক নুরজাহান বেগম ইন্তেকাল করেন-
    ANSWER: ২৩ মে,২০১৬।
    HINTS: বিখ্যাত ‘বেগম’ পত্রিকার সম্পাদক নুরজাহান বেগম ইন্তেকাল করেন ২৩ মে,২০১৬। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৯১ বছর। নারীর অবস্থান উন্নয়ন ও সাহিত্যক্ষেত্রে অবদানের জন্য নুরজাহান বেগম বহু পদক ও সম্মাননা পেয়েছেন। ‘বেগম’ বাংলার প্রথম সচিত্র নারী সাপ্তাহিক। সাহিত্যক্ষেত্রে মেয়েদেরকে এগিয়ে আনার লক্ষ্যে ১৯৪৭ সালের ২০ জুলাই কলকাতা থেকে প্রকাশিত হয়। ১৯৫০ সালে ঢাকায় চলে আসে ‘বেগম’। পত্রিকাটির প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদিকা ছিলেন বেগম সুফিয়া কামাল। পওে পত্রিকাটির সম্পাদনা শুরু করেন নূরজাহান বেগম। ‘বেগম’ এর প্রথম সংখ্যা ছাপা হয়েছিল ৫০০ কপি। মূল্য ছিল ৪ আনা। প্রচ্ছদে ছাপা হয়েছিল বেগম রোকেয়ার ছবি।
  9. ঊট থেকে বৃটেনের বেরিয়ে যাওয়ার ব্যাপারে জনগণের রায় নিতে সেদেশে গণভোট অনুষ্ঠিত হবে।
    ANSWER: ২৩ জুন, ২০১৬।
    HINTS: ইউরোপিয় ইউনিয়ন বা ঊট থেকে বৃটেনের বেরিয়ে যাওয়ার (যেটি বেক্সিট নামে পরিচিত হয়ে উঠেছে) ব্যাপারে জনগণের রায় নিতে যুক্তরাজ্যে গণভোট অনুষ্ঠিত হয়েছে-২৩-জুন,২০১৬।
  10. জার্মান কাপ ২০১৬, চ্যাম্পিয়ান—
    ANSWER: বায়ার্ন মিউনিখ।
    HINTS: জার্মান কাপের ফাইনালে বরুসিয়া ডর্টমুন্ডকে টাইব্রেকারে ৪-৩ গোলে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ান হয় বায়ার্ন মিউনিখ।
  11. কাপা দেল রে ২০১৬, চ্যাম্পিয়ান—
    ANSWER: বার্সেলোনা
    HINTS: বার্সেলোনা সেভিয়াকে ২-০ গোলে পরাজিত করে কোপা দেলরে-২০১৬ শিরোপা অর্জন করে।
  12. লন্ডনের প্রথম মুসলিম মেয়রের নাম?—
    ANSWER: সাদিক খান।
    HINTS: লন্ডনের প্রথম মুসলিম মেয়রের নির্বাচিত হয়েছেন পাকিস্তান বংশোদ্ভূত সাদিক খান।
  13. NASA এর তথ্য মতে সৌরজগতের বাইরে মোট গ্রহের সংখ্যা কত?—
    ANSWER: ৩ হাজার ২৬৪ টি।
    HINTS: সৌরজগতের বাইরে আরও ১ হাজার ২৮৪ টি গ্রহের সন্ধান পেয়েছেন জোতির্বিজ্ঞানীরা।মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসা এ ঘোষণা দিয়েছে। সবমিলিয়ে সৌরজগতের বাইরে মোট গ্রহের সংখ্যা ৩ হাজার ২৬৪ টি।
  14. সম্প্রতি বাংলাদেশের দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রনালয় জাতীয় দুর্যোগ হিসেবে ঘোষনা দিয়েছে?—
    ANSWER: বজ্রপাতকে।
    HINTS: সরকারি নথিতে বজ্রপাতকে দুর্যোগ হিসেবে গণ্য করা হত না। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা-সংক্রান্ত জাতীয় পরিকল্পনা ২০১০-২০১৫ এ মোট ১২ টি প্রাকৃতিক দুর্যোগের কথা উল্লেখ আছে। তবে এর মধ্যে বজ্রপাত নেই। বজ্রপাতে হতাহতের ঘটনাকে জাতীয় দুর্যোগ হিসেবে ঘোষণা করেছে সরকার। সম্প্রতি বজ্রপাতে সারা দেশে মোট ৮১ জনের মৃত্যু হয়।
  15. WHO এর মতে বিশ্বের সবচেয়ে দূষিত শহর ইরানের —
    ANSWER: জবল
    HINTS: WHO এর মতে বিশ্বের চরম বায়ূ দূষণের শহর হিসেবে শীর্ষে রয়েছে ইরানের জাবল শহর। এ তালিকায় এর পরেই স্থান পেয়েছে ভারতের গোয়ালিয়র ও এলহাবাদ। এরপরই স্থান পেয়েছে সৌদি আরবের দুটি শহর রাজধানী রিয়াদ এবং আল জুবেইল।
  16. ফিফার প্রথম নারী মহাসচিব কে?
    ANSWER: ফাতমা সাম্বা দিওফ সামৌরা।
    HINTS: প্রথম নারী হিসেবে ফিফার মহাসচিব হিসেবে নিয়োগ পেলেন সেনেগালের ফাতমা সাম্বা দিওফ সামৌরা। ২১ বছর ধওে জাতিসংঘের বিভিন্ন কর্মকান্ডে সম্পৃক্ত ফাতমা সাম্বা দিওফ সামৌরা। ১৯৯৫ সালে জাতিসংঘে যোগ দেয়ার পর এখ নপর্যন্ত ছয়টি ভিন্ন ভিন্ন দেশে কাজ করেছেন তিনি। ফিফার বর্তমান সভাপতি জিয়ান্নি ইনফান্তিনো।
  17. সম্প্রতি বিশ্বের সবচেয়ে বয়স্ক মানুষ মৃত্যুবরণ কবে?
    ANSWER: ১২ মে, ২০১৬।
    HINTS: বিশ্বের সবচেয়ে বেশি বয়সী মানুষ “সুসান্নাহ মুশাত জোনস” ১২ মে, ২০১৬ রাতে যুক্তরাষ্ট্রের নিউহয়ার্কে মারা গেছেন। তার বয়স হয়েছিল ১১৬ বছর।
  18. বন্ধ হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় শরণার্থী শিবির?
    ANSWER: দাবাব, কেনিয়ায়।
    HINTS: কেনিয়া সরকার সম্প্রতি দাবাব শরণার্থী শিবির বন্ধ করার ঘোষণা দিয়েছে। এই ক্যাম্পে ৩৩০০০০ সোমালিয় রিফিউজি রয়েছে। দাবাব বিশ্বের সবচেয়ে বড় শরণার্থী শিবির হিসেবে পরিচিত। কেনিয়া সরকার জানিয়েছে জাতীয় নিরাপত্তার স্বার্থেই এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।
  19. ম্যান বুকার পুরষ্কার-২০১৬, পেয়েছেন-
    ANSWER: হান কাঙ, দক্ষিণ কোরিয়া।
    HINTS: সাহিত্যের অন্যতম সম্মানজনক পুরষ্কার ম্যান বুকার পুরষ্কার-২০১৬ পেলেন দক্ষিণ কোরিয়ার “হান কাঙ”। দ্য ভেজেটেরিয়ান উপন্যাসের জন্য তিনি এ পুরষ্কার পেয়েছেন।
  20. ফ্রান্সে “কান চলচ্চিত্র উৎসব-২০১৬”, এটি কততম আসর-
    ANSWER: ৬৯ তম।
    HINTS: ২০১৬ সালে ফ্রান্সে “কান চলচ্চিত্র উৎসব-২০১৬” উৎসব টি ৬৯ তম আসর।
  21. মাসাক ফনসেকার ফাস হওয়া গোপন নথির সংখ্যা ——
    ANSWER: ১ কোটি ১৫ লাখ।
    HINTS: মোসাক ফনসেকা হচ্ছে গোপন সম্পদধারী ব্যক্তিদেও আইনি সহয়তা দানকারী ও সেবা দানকারী পানামার একটি প্রতিষ্ঠান। মোসাক ফনসেকার ফাঁস হওয়া গোপন নথির সংখ্যা ১ কোটি ১৫ লাখ। ফাঁস হওয়া এসব নথিতে উঠে আসে ২০০ টি দেশের ২ লাখ ১৪ হাজার ব্যক্তির নাম।
  22. সম্প্রতি বাংলাদেশে বৃটেনের বাণিজ্যদূত নির্বাচিত হয়েছেন————–
    ANSWER: রুশনারা আলী।
    HINTS: বাংলাদেশে বৃটেনের বাণিজ্যদূত নির্বাচিত হয়েছেন বাংলাদেশী বংশোদ্ভুত ব্রিটিশ এমপি রুশনারা আলী।
  23. লিৎজার পুরষ্কার-২০১৬ লাভ করে——-
    ANSWER: Associated Press (AP) & Washington Post.
    HINTS: পুলিৎজার পুরষ্কার মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ছাপার সাংবাদিকতা, সাহিত্য এবং সঙ্গীতের সর্বোচ্চ পুরষ্কার হিবেবে বহুল সমাদৃত। নিউ ইয়ার্ক সিটিতে অবস্থিত কলাম্বিয়া ইউনিভার্সিটি এর প্রশাসকের ভূমিকা পালন করে। এক অর্থে জোসেফ পুলিৎজার ও উইলিয়াম হার্স্ট হলুদ সাংবাদিকতার প্রতিষ্ঠাতাদের মধ্যে অন্যতম। পুলিৎজার নামের এই হাঙ্গেরীয়-মার্কিন সাংবাদিকই পুলিৎজার পুরষ্কারের প্রচলন করেন। ১৯১১ সালে মৃত্যুর সময় পুলিৎজার কলাম্বিয়া ইউনিভার্সিটিতে প্রচুর পরিমাণ অর্থ রেখে গিয়েছিলেন। তার অর্থের কিছু অংশ দিয়ে ১৯১২ সালে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা স্কুল গঠিত হয়েছিল। এই অর্থের মাধ্যমে ১৯১৭ সালের ৪ঠা জুন প্রথম পুলিৎজার পুরষ্কারের ঘোষণা দেয়া হয়। বর্তমানে প্রতিবছর এপ্রিল মাসে পুরষ্কারটি ঘোষিত হয়। একটি স্বাধীন বোর্ড বিজয়ী নির্বাচন করে থাকেন।
  24. ফিফার সর্বশেষ দুটি সদস্য দেশের নাম————–
    ANSWER: কসোভো ও জিব্রাল্টার।
    HINTS: কসোভো (২১০ তম সদস্য) এবং জিব্রল্টার (২১১ তম সদস্য) এ দুটি নতুন দেশকে নিয়ে এখন ফিফার সদস্যসংখ্যা হলো ২১১। মেক্সিকোতে গত(১৩ মে,২০১৬) তারিখে শেষ হওয়া ফিফা কংগ্রেস সংখ্যাগরিষ্ঠ ভোটে এদুটি দেশকে ফিফা সদস্য দেশ হিসেবে গ্রহণ করা হয়।
  25. বর্তমান দেশের সর্বশেষ ৪৯০তম উপজেলার নাম————–
    ANSWER: কর্ণফূলী
    HINTS: চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলার কর্ণফূলী থানাকে উপজেলায় উন্নীত করেছে সরকার। দেশের মোট উপজেলা সংখ্যা এখন ৪৯০টি। পটিয়া উপজেলার ২২ টি ইউনিয়ন থেকে ৫ টি ইউনিয়নকে নিয়ে কর্ণফূলী উপজেলা গঠন করা হয়েছে। এই উপজেলার জনসংখ্যা এক লক্ষ ৬২ হাজার ১৪০ জন।
  26. রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়টি কোথায় স্থাপিত হচ্ছে?
    ANSWER: সিরাজগঞ্জের শাজাদপুরে।
    HINTS: সিরাজগঞ্জের শাজাদপুরে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়টি হবে দেশের (৩৯তম) সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়।
  27. হাইকোর্টে সংবিধানের ১৬ তম সংশোধনী অবৈধ ঘোষণা করে রায় দেয় কবে?
    ANSWER: ৫ মে, ২০১৬।
    HINTS: বিচারকদের অপসারনের ক্ষমতা সংসদের হাতে ন্যস্ত করে আনা সংবিধানের ১৬ তম সংশোধনী অবৈধ ঘোসণা করেছেন মহামান্য হাইকোর্ট। এর আগে উচ্চ আদালতের বিচারপতি অপসারণের ক্ষমতা সংসদের কাছে ফিরিয়ে নিতে ২০১৪ সালের ১৭ সেপ্টমবর সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী আনা হয়। বিলটি পাশের পর একই বছরের ২২ সেপ্টমবর তা গেজেট আকার প্রকাশিত হয়। ১৯৭২ সালে মূল সংবিধানে উচ্চ আদালতের বিচারপতিদের অপসারণের ক্ষমতা জাতীয় সংসদের উপর ন্যাস্ত ছিল। ১৯৭৫ সালের ২৪ জানুয়ারি সংবিধানের ৪র্থ সংশোধনীর মাধ্যমে এই ক্ষমতা রাষবট্রপতির হাতে ন্যাস্ত করা হয়। পওে সংবধানের পঞ্চম সংশোধনীর মাধ্যমে জিয়াউর রহমানের শাসনামলের বিচারকদের অপসারণের ক্ষমতা সুপ্রিম জুডিশিয়াল কাউন্সিলের কাছে ন্যাস্ত হয়।
  28. দেশের ২৩ তম স্থল বন্দর কোনটি?
    ANSWER: বাল্লা স্থলবন্দর
    HINTS: দেশের ২৩ তম স্থল বন্দর হল বাল্লা স্থলবন্দর। অবস্থান চুনারঘাট, হবিগঞ্জ।
  29. পরবর্তী (৭ম) টি-২০ বিশ্বকাপ কবে অনুষ্ঠিত হবে?
    ANSWER: ২০২০ সালে।
    HINTS: এখন থেকে টি-২০ বিশ্বকাপ ৪ বছর পরপর অনুষ্ঠিত হবে। পরবর্তী (৭ম) টি-২০ বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হবে ২০২০ সালে অস্ট্রেলিয়ায়।
  30. পদার্থ বিজ্ঞনের ব্রেকথ্রু পুরষ্কার পেলেন বাংলাদেশর ——-
    ANSWER: সেলিম শাহরিয়ার ও দীপাঙ্কর তালুকদার।
    HINTS: ব্রেক থ্রু প্রাইজের ওয়েবসাইটে দেওয়া তথ্য অনুযয়ী, বিজ্ঞানী আইনস্টাইন ১০০ বছর আগে যে মহাকর্ষ তরঙ্গেরকথা বলেছিলেন, তা শনাক্ত করার জন্য বিশেষ এই পুরষ্কার পাচ্ছেন লেজার ইন্টারফেরোমিটার গ্রাভিটেশন- ওয়েব অবজারভারটেরি বা লাইগোর প্রতিষ্ঠাতা রোনাল্ড ডাব্লিউ পি ড্রিভার, কিপ এস থ্রোন, রেইনার ওয়েসিস এই আবিষ্কারের সঙ্গে যুক্ত বিশ্বের বিভিন্ন দেশের ১ হাজার ১২ জন বিজ্ঞানী । তিন মিরিয়ন ডলারের এই পুরস্কারের অর্থ দুইভাগে ভাগ হবে। লাইগোর প্রষ্ঠিাতা তিনজন মিলে পাবেন এক মিলিয়ন মার্কিন ডলার আর বাকি ১ হাজার ১২ জন গবেষক মিলে পাবেন বাকি দুই মিলিয়ন ডলার। চলতি বছরের শেষে একটি অনুষ্ঠানের মাধ্যমে তাদের হাতে এই পুরষ্কর তুলে দেওয়া হবে।
  31. ইংলিশ পিমিয়ার লীগ ফুটবলের ২০১৫-২০১৬ মৌসুমের চ্যাম্পিয়ান হয় কোন ক্লাব?
    ANSWER: লেস্টার সিটি
    HINTS: ক্লাবটির ১৩২ বছরের ইতিহাসে এই প্রথমবার ইংলিশ পিমিয়ার লীগ জিতলো।
  32. এএফসি অনুর্ধ-১৬ মেয়েদের ফুটবলের আঞ্চলিক (মধ্য ও দক্ষিণাঞ্চল) চ্যাম্পিয়নশিপে টানা দ্বিতীয়বারের মতো চ্যাম্পিয়ান হয় কোন দেশ?
    ANSWER: বাংলাদেশ।
    HINTS: ভারতেকে ৪-০ গোলের ব্যবধানে হারিয়ে এএফসি অনুর্ধ-১৬ মেয়েদের ফুটবলের আঞ্চলিক (মধ্য ও দক্ষিণাঞ্চল) চ্যাম্পিয়নশিপে টানা দ্বিতীয়বারের মতো চ্যাম্পিয়ান হয় বাংলাদেশের মেয়েরা।
  33. বিশ্ব ব্যাংকের মতে, বাংলাদেশের আগামী অর্থবছরে (২০১৬-১৭) প্রবৃদ্ধি হবে————-
    ANSWER: ৬.৮%।
    HINTS: আগামী অর্থবছরে মোট দেশজ উৎপাদনের (জিডিপি) প্রবৃদ্ধি ৬.৮ শতাংশ হবে বলে প্রাক্কলন করেছে বিশ্বব্যাংক। তবে চলতি অর্থবছরে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) দেওয়া সাময়িক হিসাবে ৭.৫ শতাংশ প্রবৃদ্ধির যে হিসাব দেওয়া হয়েছে সে বিষয়ে সংশয় প্রকাশ করেছে বিশ্বব্যাংক। ডেভেলপমেন্ট আপডেট শীর্ষক প্রতিবেদন প্রকাশ উপলক্ষে এই সংবাদ সম্মেলন আয়োজন করে বিশ্বব্যাংক।
  34. কোন দেশ কোনো বৈশ্বিক টুনার্মেন্ট আয়োজন করতে পারবে না, এই মর্মে নিষেধাজ্ঞা জারি হয়েছে?
    ANSWER: দক্ষিণ আফ্রিকা।
    HINTS: অশেতাঙ্গ ক্রিকেটারের কোটা পূরণ না হওয়ার জন্য দক্ষিণ আফ্রিকা কোন প্রকার বৈশ্বিক টুনার্মেন্ট আয়োজন করতে পারবে না। শুধু ক্রিকেট নয়, রাগবি, নেটবল ও অ্যাথোলেটিকসও পেয়েছে এই নিষেধাজ্ঞা। গত বছর (২০১৫ সালে) দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রীড়া মন্ত্রনালয়ের সঙ্গে একটা চুক্তি হয়েছিল দেশের ৫ টি ফেডারেশন। সেটি অনুসাওে, দলে অন্তত্ব ৬০ ভাগ অশেতাঙ্গ খেলোয়াড় থাকার কথা। কিন্তু ক্রিকেটে সেই হার ৫৫ শতাংশ।
  35. বাংলাদেশের বিদেশী মুদ্রার রিজার্ভ ২৯ বিলিয়ন ডলার অতিক্রম করে কবে?
    ANSWER: ২৫ এপ্রিল, ২০১৬।
    HINTS: রপ্তানি আয় বৃদ্ধি এবং আমদানিতে ধীর গাতির কারণে বাংলাদেশের বিদেশী মুদ্রার রিজার্ভ ২৯ বিলিয়ন ডলার অতিক্রম করেছে বলে মনে করেন বাংলাদেশ ব্যাংক। এর আগে ২৫ ফেব্রুয়ারী, ২০১৬ তারিখে বাংলাদেশের বিদেশী মুদ্রার রিজার্ভ ২৮ বিলিয়ন ডলার অতিক্রম করেছিল।
  36. “প্যারিস জলবায়ূ চুক্তি” কোথায় স্বাক্ষরিত হয়?
    ANSWER: নিউ-ইয়ার্কে।
    HINTS: প্যারিস জলবায়ূ চুক্তিতে স্বাক্ষর করে ইউরোপিয় ইউনিয়ন ও ১৭৪ টি দেশের সরকার বা রাষ্ট্রপধানেরা এবং তাদের প্রতিনিধিরা। ২২ এপ্রিল (বিশ্ব ধারীত্রি দিবসে) নিউ-ইয়ার্কে ১৭৪টি দেশ ও একটি সংস্থাকে নিয়ে মোট ১৭৫টি পক্ষের স্বাক্ষরদান নিঃসন্দেহে একটি ঐকিহাসিক ঘটনা। সম্মেলনে বিশ্বের তাপমাত্রা প্রাক শিল্পায়ন পর্বের তাপমাত্রার তুলনায় কিছুতেই ২ ডিগ্রি সেলসিয়াসের উপরে উঠতে না দেওয়ার এ সমঝোতার পাশাপাশি ক্ষতিগ্রস্ত দেশগুলোকে সহয়তার ব্যাপারেও ঐক্যমত্য হয়।
  37. বিশ্বের প্রথম অঞ্চল হিসেবে কোন মহাদেশ থেকে ম্যালেরিয়া নির্মূল হয়েছে বলে WHO ঘোষনা দেয়?
    ANSWER: ইউরোপ থেকে।
    HINTS: সম্প্রতি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (WHO) জানিয়েছে, ইউরোপ বিশ্বের প্রথম অঞ্চল যেখান থেকে ম্যালেরিয়া নির্মূল করা সম্ভব হয়েছে ।
  38. যুক্তরাষ্ট্র নতুন ২০ ডলারে প্রথমবারের মত একজন আফ্রিকান-আমেরিকান হিসেবে কার ছবি থাকবে?
    ANSWER: হ্যারিয়েট টাবম্যানের
    HINTS: যুক্তরাষ্ট্র নতুন ২০ ডলারের যে নোট বাজারে ছাড়বে, তাতে প্রথমবারের একজন আফ্রিকান-আমেরিকান এর ছবি থাকবে। তাঁর নাম হ্যারিয়েট টাবম্যানের। শুধু টাবম্যানই নন নতুন ৫ ও ১০ ডলারের নোটেও নতুন মুখ আসছে। এদের মধ্যে রয়েছেন অধিকার নেতা মার্টিন লুথার কিং ও সর্বজনীন মানবাধিকারের ঘোসণার অন্যতম প্রণেতা মিসেস ইলেনর রুজভেল্ট।
  39. বাংলাদেশের কোথায় সর্ববৃহৎ চুনাপাথরের খনির সন্ধান পাওয়া গেছে?
    ANSWER: নওগাঁয়
    HINTS: নওগাঁয় দেশের সবচেয়ে বড় চুনাপাথরের খনির সন্ধান পাওয়া গেছে বলে জানিয়েছেন বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নজরুল হামিদ। নওগাঁয় জেলার বদলগাছি উপজেলার তাজপুরে ভূতত্ত্ব অধিদপ্তর এই খনি আবিষ্কার করেছে।

বাংলাদেশ ও আন্তর্জাতিক বিষয়বলীর সাম্প্রতিক তথ্য ২০১৫ থেকে ২০১৬ পর্ব ০১

বাংলাদেশ ও আন্তর্জাতিক বিষয়বলীর সাম্প্রতিক তথ্য ২০১৫ থেকে ২০১৬ পর্ব ০২

৩৭তম বিসিএস প্রিলির সম্ভাব্য কাটমার্কস্‌ বিষয়ক আলোচনা

৩৭তম বিসিএস প্রিলির সম্ভাব্য কাটমার্কস্‌ বিষয়ক আলোচনা | সুশান্ত পাল

৩৭তম বিসিএস প্রিলির সম্ভাব্য কাটমার্কস্‌ বিষয়ক আলোচনা | সুশান্ত পাল

৩৭তম বিসিএস প্রিলির প্রশ্নটা নিজে সলভ্‌ করলাম। প্রশ্নে উত্তর দাগাতে সময় নিলাম ১ ঘণ্টা ৪ মিনিট।

এই প্রশ্নে,
পারি না=৩৭টা (বেশিরভাগই, সাধারণ জ্ঞানের),
কনফিউজড্‌=৬টাতে,
বাকি থাকল=১৫৭টা।
দাগানোর সময়, মনে আনন্দ ছিল, কোনো নার্ভাসনেস ছিল না, কিছু হারানোর ভয় ছিল না। এছাড়াও, বৃত্ত ভরাট করার ঝামেলাও ছিল না।

একজাম হল কোনো আনন্দের জায়গা নয়। ধরে নিচ্ছি, যদি সত্যিই পরীক্ষাকেন্দ্রে বসতাম গত ৩০ সেপ্টেম্বর, তবে, ‘কনফিউজড্‌’—এমন প্রশ্নের সংখ্যা আরও কিছু বেড়ে যেত। কতটা বেড়ে যেত? ধরে নিচ্ছি, আরও ১০টা বেড়ে যেত। কনফিউশনের সংখ্যা মোট দাঁড়ায়, ৬+১০=১৬তে। যদি এর সবকটা বৃত্তই ভরাট করতাম, আর সেগুলির মধ্যে ১২টা ভুল করতাম, তবে মার্কস্‌ আসত -২। তবে, মোট প্রাপ্ত নম্বর হতো, ১৫৭-১০-২=১৪৫। মানে, এই মুহূর্তেও পরীক্ষা দিলে, আমার অন্তত ১৪৫ নম্বর পাওয়ার কথা।

আমার নিজের কথা বাদ! এখন আসি, আসলেই সম্ভাব্য কাটমার্কস্‌ কত হতে পারে? এটা আসলে, এখনো কেউই জানেন না, খোদ পিএসসি’ও না। পরশু থেকে শুরু করে এই লেখাটি লেখার সময় পর্যন্ত অন্তত কয়েকশো ক্যান্ডিডেটের সাথে কথা বলার সুযোগ হয়েছে। শুনলে আপনি খুশি হবেন, তাদের বেশিরভাগেরই অবস্থা শোচনীয়। পরীক্ষা অতোটা ভাল না দিলে, যত বেশি শুনি, অন্যান্যদের পরীক্ষাও আমার মতো (কিংবা, আমার চাইতেও বেশি) খারাপ হয়েছে, আনন্দ তত বেশি বাড়ে। যারা একটু ভাল পরীক্ষা দিয়েছেন, এবং, আমি ধরে নিচ্ছি, উনারা রিটেনের পাসপোর্ট পেয়ে যাবেন, তাদের প্রায় সবারই সম্ভাব্য প্রাপ্ত নম্বর ৮৫-৯৩ এর আশেপাশে।

আসুন, এখন কিছু বিশ্লেষণে যাওয়া যাক:-

৩৫তম বিসিএস:
পোস্ট: ১৮০৩টি, জেনারেল – ৪৫৫টি
প্রিলি দেয়ার কথা: ২ লাখ ৪৪ হাজার ১০৭ জনের
প্রিলিতে পাস: ২০ হাজার ৩৯১ জন (পোস্টের তুলনায় ১১.৩ গুণ, জেনারেল ক্যাডারের পোস্টের তুলনায় ৪৪.৮ গুণ)

৩৬তম বিসিএস:
পোস্ট: ২১৮০টি, জেনারেল – ৫৪২টি
প্রিলি দেয়ার কথা: ২ লাখ ১১ হাজার ৩২৬ জনের
প্রিলিতে পাস: ১৩ হাজার ৮৩০ জন (পোস্টের তুলনায় ৬.৩ গুণ, জেনারেল ক্যাডারের পোস্টের তুলনায় ২৫.৫ গুণ)

৩৭তম বিসিএস:
পোস্ট: ১২২৬টি, জেনারেল – ৪৬৫টি
প্রিলি দেয়ার কথা: ২ লাখ ৪৩ হাজার ৪৭৬ জনের

আমরা দেখেছি, একজন গড়পড়তা ক্যান্ডিডেট, যিনি ক্যাডার হওয়ার সকল যোগ্যতাই রাখেন, তার কথা বিবেচনায় আনলে, ৩৫ এর প্রশ্ন একটু কঠিন ছিল, ৩৬ এর প্রশ্ন গতানুগতিক ছিল, এবং ৩৭ এর প্রশ্নের স্ট্যান্ডার্ড ৩৫ এর মতোই। সে হিসেবে, পিএসসি যদি সিদ্ধান্ত নেন, ৩৫ এর মতোই ৩৭ এর কর্মসূচি গ্রহণ করবেন, তবে আমরা ধরে নিচ্ছি, রিটেন পরীক্ষা দেয়ার সুযোগ পাওয়ার কথা প্রায় ১৪ হাজার ক্যান্ডিডেটের (যদি মোট পোস্টের তুলনায় হিসেব করি) কিংবা প্রায় ২১ হাজার ক্যান্ডিডেটের (যদি জেনারেল ক্যাডারের পোস্টের তুলনায় হিসেব করি)। গড়টা ধরে যদি এগোই, তবে সংখ্যাটি হয় মোটামুটি ১৭ হাজার। ওরকম কিছু হলে, ৩৭তম বিসিএস প্রিলিতে কাটমার্কস্ হওয়ার কথা ৮৪-৮৯ এর মধ্যে।

এখন কিছু কথা বলে এই লেখাটি শেষ করছি

এক: পিএসসি এবার মোট কতজনকে রিটেন দেয়ার সুযোগ দেবেন, সেটা তো আমরা কেউই জানি না। তাই, আপনাদের যাদের সম্ভাব্য নম্বর ৮৫ এর আশেপাশে, তারা আজকে থেকেই রিটেনের জন্য নাওয়াখাওয়া ভুলে পড়াশোনা শুরু করুন। বিশ্বাস করুন, রিটেনে ভাল করা না-করা প্রায় পুরোটাই আপনার হাতে।

দুই: জানা জিনিস ভুল শুধু আপনি একাই করেননি, যিনি ৩৭তম বিসিএস পরীক্ষায় সম্মিলিত মেধাতালিকায় প্রথম হবেন, তিনিও করেছেন। তাই, এটা নিয়ে এত আফসোস করার কিছু নেই। অতীতের জন্য যতই আফসোস করবেন, ভবিষ্যতের জন্য আফসোসের রাস্তা ততই প্রশস্ত হবে।

তিন: বিশাল বিশাল মার্কস পাবেন দাবিকরা বিশাল বিশাল পণ্ডিতদের বেশিরভাগই বিশাল বিশাল ফেল করে আমাদের সবাইকে বিশাল বিশাল বিনোদন দেবেন। রেজাল্টটা বের হতে দিন, আর দেখুন কী হয়! Just wait & see!! আপনার নিজের মুখটা বন্ধ রাখুন।

চার: প্রিলির রেজাল্ট বের হওয়ার পর রিটেনের প্রিপারেশন নেয়ার জন্য বেশি সময় পাবেন না। আমি চ্যালেঞ্জ করে বলতে পারি, কেউ যদি রিটেনের জন্য সঠিকভাবে প্রচুর পরিশ্রম করে পড়াশোনা করেন, তবে উনার, মেধাতালিকায় ১ম ১০ জনের মধ্যে থাকার সম্ভাবনা প্রায় ৯৫%। বাকি ৫% ভাগ্যের উপর নির্ভরশীল, যেটার উপর আপনার আমার, কারোরই কোনো হাত নেই। (ভাগ্যে বিশ্বাস করেন না? ঠিক আছে, আপনি অন্তত ১বার প্রস্তুতি নিয়ে বিসিএস পরীক্ষা দিয়ে দেখুন! আপনার নিজের, কিংবা আপনার আশেপাশের অনেকের জীবন থেকে আপনি নিশ্চিত হয়ে যাবেন, স্রেফ মন্দ ভাগ্যের কারণে অনেক যোগ্য ব্যক্তিই চাকরি পান না।)

৩৭তম বিসিএস রিটেনের পড়াশোনা কীভাবে শুরু করবেন? প্রস্তুতি শুরু করার আগে, আগ্রহীরা বিসিএস লিখিত পরীক্ষার প্রস্তুতিকৌশল নিয়ে আমার ফেসবুক নোটগুলি (বিশেষ করে, ৩৫তম এবং ৩৬তম রিটেনের জন্য লেখা নোটগুলি) দেখে নিতে পারেন। নোটগুলি সবই পাবলিক করা আছে, আমার নোটস্ থেকে খুব সহজেই খুঁজে পড়ে নিতে পারবেন।
আপাতত এইটুকুই! সৃষ্টিকর্তা আমাদের সকলের মঙ্গল করুন।

শুভকামনায়
সুশান্ত পাল
আপনাদের সিনিয়র সহকর্মী

বিসিএস প্রিলি পরীক্ষার আগের রাত | Sujan Debnath

আজকের বিষয়ঃ বিসিএস প্রিলি পরীক্ষার আগের রাত

লেখকঃ Sujan Debnath
(Second Secretary at Bangladesh Embassy in Athens – বাংলাদেশ দূতাবাস, এথেন্স)

২৮-তম বিসিএস প্রিলি পরীক্ষার আগের রাত! কয়েকজন বন্ধু মিলে আমারে এক মেসে নিয়ে গেল, সেখানে নাকি কোথা থেকে প্রশ্ন চলে আসবে! গতবার নাকি ঐ মেসের অনেক সাফল্য ছিল। আমি ভাবলাম ভাল কথা কিন্তু আমাকে নিয়ে গিয়ে কি করবে? না করতে পারলাম না। আবার ভাবলাম, সত্যি যদি সেখানে প্রশ্ন চলে আসে ।তাহলে না গেলে চরম মিস! তো গেলাম সেই মেসে।

তারপরের গল্প

রাত ৮ টা থেকে বিভিন্ন জনের মোবাইলে খালি কল আসতেছে। এগুলো নাকি বিভিন্ন ভার্সিটির হল থেকে আসতাছে। প্রশ্ন আসতাছে!আমার কোন বেইল নাই। আমাকে বলল যে,তুই রেস্ট নে লাগলে ডাকুম নে। আমি দেখলাম সবাই প্রশ্ন পেয়ে যাচ্ছে আর আনন্দে বাক-বাকুম করছে। আমার কোন কাজ নাই।একটু পড়ব ভাবছিলাম, কিন্তু মন আর পড়ায় নেই। মন প্রশ্নের দিকে। ওদের ব্যস্ততা দেখে হতাশ লাগছিল।

রাত ৩ টা হয়ে গেল।ভাবলাম, এবার না ঘুমালে আর রক্ষা নেই।

কিন্তু কিসের ঘুম ! ১৫ মিনিট পরেই টেনে তুলল। এবার গণিত প্রশ্ন এসে গেছে!  সেইটা সলভ করতে আমারে দরকার। তাকিয়ে দেখলাম, ওরা ৬ জনে যে পরিমাণ প্রশ্ন মোবাইলে কালেক্ট করেছে তা গুণলে দুই হাজার ছাড়িয়ে যাবে। আর সেই সব প্রশ্নের যেসব সাধারণ জ্ঞান – আমি ওগুলা কিছুই পারি না। যাই হোক ম্যাথ করতে বসলাম। রাত শেষ হয়ে গেল সলভ করতে করতে.এভাবে সারা রাত নির্ঘুম থেকে গেলাম পরীক্ষা হলে। একটাই প্রার্থনা করছিলাম স্রষ্টার কাছে, তিনি যেন আমার মাথাটা ঠাণ্ডা রাখেন।

পরীক্ষা হল। আহা! সেই দুই হাজার প্রশ্নের একটাও সেখানে ছিল না। আমি স্রষ্টাকে ধন্যবাদ দিলাম, অত কিছুর পরও তিনি আমার মাথা ঠাণ্ডা রেখেছিলেন পরীক্ষার হলে। আর পরীক্ষা শেষে আমার সেই বন্ধুরা দেখি একে অন্যরে গালাগালি দিতাছে – ‘এমন প্রশ্নের পিছে না ঘুইরা, একরাত পড়লেও এর চেয়ে ভাল পরীক্ষা হইত’!

কিছু সাধারণ পরামর্শঃ

  1. তাই বিসিএস প্রিলি পরীক্ষার আগের রাতে কারো কথা না শুনে একটা নির্মল ঘুম দিন।
  2. পরীক্ষার সাধারণ জিনিস যেমনঃ- এডমিট কার্ড, সিটপ্লান, কলম, পেনসিল, ঘড়ি, টাইমিং এসব আগে থেকেই ঠিক করে রাখুন।
  3. কতটা প্রশ্নের উত্তর করব? এটা নিয়ে আগে বলেছি। এটা ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ বলে আবার বলছি – ‘প্রিলিতে সেইফ মার্কস আগে থেকে বলা যায় না।
  4. নেগেটিভ মার্কিং একটা ট্রিকি বিষয়। তাই আগে শুধু নিশ্চিত জানা প্রশ্নের উত্তর করুন। যেগুলো বাদ থাকছে, প্রশ্নে দাগ দিয়ে রাখুন। শেষ হলে গুণে দেখুন কতটা হলো।
  5. এবার ভাবুন প্রশ্ন কি সহজ না কঠিন? কঠিন হলে ৫৫-৬০% মানে নিশ্চিত পাশ। আর সহজ হলে ৬৫-৭০% মানে নিশ্চিত পাশ। এই ডিসিশানটা হলে বসেই নিতে হবে। এর উপর ভিত্তি করে দেখুন ৫০-৫০ চান্স যেসব প্রশ্নের, সেগুলো উত্তর করতে পারেন।’
  6. আত্মবিশ্বাস নিয়ে পরীক্ষার হলে যান। নিজের উপরই বিশ্বাস রাখুন। পাশের জন্ ৯০% ক্ষেত্রে আপনার চেয়ে খারাপ প্রিপারেশন নিয়েছে। তাই ওই সময়টা তাঁকে এভয়েড করুন।
  7. ম্যাথ, মানসিক দক্ষতা – এগুলো শেষের জন্য ফেলে রাখবেন না। সময় থাকতেই দিয়ে ফেলুন।

২ ঘন্টা কাজে লাগাতে পারলেই প্রিলি পার হয়ে যাবেন।  কি ভাল পারেন, খারাপ পারেন ভুলে যান।  জাস্ট দুই ঘন্টা ফাইট করতে রেডি হোন। সবার জন্য শুভকামনা। একটা পারফেক্ট T20 ম্যাচ কনফিডেন্টের সাথে খেলে আসুন, প্রিলি কেঊ আটকাতে পারবে না।

বিজ্ঞান সম্পর্কিত ২০০টি প্রশ্নের চূড়ান্ত সাজেশন ।৩৭ তম বিসিএস

 ৩৭ তম বিসিএস প্রিলি এর বিজ্ঞান সম্পর্কিত ২০০টি প্রশ্নের চূড়ান্ত সাজেশন ২০১৬

৩৭তম বিসিএস প্রিলি পরীক্ষা সামনে রেখে bdgovtjobcircular.com বিজ্ঞান সম্পর্কিত ২০০টি প্রশ্নের চূড়ান্ত সাজেশন আপনাদের সামনে উপস্থাপন করছে।
bdgovtjobcircular.com presented final suggestion for BCS Science. Our team hope that it will help you for 37th BCS Preliminary Examination Sep 2016.  Read this post carefully.

 science-suggestion

  • বিগত সালের বি সি এস এ বিজ্ঞান সম্পর্কিত প্রশ্নসমূহ ঃ
  • 1) আমাদের দেহকোষ রক্ত হতে গ্রহণ করে অক্সিজেন ও গ্লুকোজ। (১০ তম BCS )
    2) উড়োজাহাজের গতি নির্ণায়ক যন্ত্র ট্যাকোমিটার।(২২ তম BCS
    3) এনজিও প্লাষ্টি হচ্ছে হ্রৎপিন্ডের বন্ধ শিরা বেলুনের সাহায্যে ফুলানো। (২১ তম BCS)
    4) কচুশাক বিশেষভাবে মূল্যবান যে উপাদানের জন্য লৌহ (১০তম বিসিএস)।
    5) কম্পিউটার আবিষ্কার করেন হাওয়ার্ড এইকিন (২০তম বিসিএস)।
    6) কর্কটক্রান্তি রেখা বাংলাদেশের মধ্যখান দিয়ে গেছে (১৬তম বিসিএস)।
    7) কার্বুরেটর থাকে যে ইঞ্জিনে পেট্রোল ইঞ্জিনে (২৭তম বিসিএস)।
    8) ক্যাসেটের ফিতার শব্দ রক্ষিত থাকে চুম্বক ক্ষেত্র হিসাবে (২৩তম বিসিএস)।
    9) ক্লোনিং পদ্ধতিতে জন্মগ্রহণকারী ভেড়ার নাম ডলি (১৯তম বিসিএস)।
    10) গ্যালিলিও’ হলো পৃথিবী থেকে পাঠানো বৃহস্পতির একটি কৃত্রিম উপগ্রহ। (১৮ তম BCS )
    11) গ্লিসারিন দ্রবীভূত হয় না পানিতে (২৮তম বিসিএস)।
    12) চাঁদে কোন শব্দ করলে তা শোনা যাবে না, কারণ চাঁদে বায়ুমণ্ডল নেই (১৬তম বিসিএস)।
    13) জলজ উদ্ভিদ সহজে ভাসতে পারে কারণ এদের কাণ্ডে অনেক বায়ু কুঠুরী থাকে (১০তম বিসিএস)।
    14) জোয়ার ভাটার তেজকটাল হয় অমাবস্যায় (১৮তম বিসিএস)।
    15) টুথপেষ্টের প্রধান উপাদান সাবান ও পাউডার। (১৭ তম BCS )
    16) ডিজিটাল ঘড়ি বা ক্যালকুলেটারে কালচে অনুজ্জ্বল যে লেখা ফুটে উঠে সেটি সিলিকন চিপ (১৫তম বিসিএস)।
    17) তামার সাথে যে উপাদান মেশালে পিতল হয় দস্তা (জিঙ্ক) (২৩তম বিসিএস)।
    18) দিনরাত্রি সর্বত্র সমান নিরক্ষরেখায়। (২৮ তম BCS)
    19) পানিতে নৌকার বৈঠা বাঁকা দেখা যাওয়ার কারণ আলোর প্রতিসরণ। (১৩ তম BCS)
    20) পিসি কালচার’ বলতে বুঝায় মৎস্য চাষ (২৩তম বিসিএস)।
    21) বাদুড় চলাফেরা করে সৃষ্ট শব্দের প্রতিধ্বনি শুনে। (২৭ তম BCS )
    22) বিশ্ব পরিবেশ দিবস পালিত হয় প্রতিবছর ৫ জুন (৩০তম বিসিএস)।
    23) বৈদ্যুতিক বাল্বের ফিলামেন্ট যে ধাতু দিয়ে তৈরি টাংষ্টেন। (২৯ তম BCS)
    24) ভূমিকম্প নির্ণায়ক যন্ত্র সিসমোগ্রাফ। (২২ তম BCS)
    25) মঙ্গলগ্রহে প্রেরিত নভোযান ভাইকিং (১৩তম বিসিএস)।
    26) মাছ অক্সিজেন নেয় পানির মধ্যে দ্রবীভূত বাতাস হতে। (১০ তম BCS )
    27) মানুষের গায়ের রং নির্ভর করে যে উপাদানের উপর মেলানিন (২৭তম বিসিএস)।
    28) মানুষের স্পাইনাল কর্ডের দৈর্ঘ্য ১৮ ইঞ্চি (প্রায়) (২৮তম বিসিএস)।
    29) যখন সূর্য ও পৃথিবীর মধ্যে চাঁদ অবস্থান করে তখন হয় সূর্য গ্রহণ। (২৩ তম BCS )
    30) যে ভিটামিন ক্ষতস্থান হতে রক্ত পড়া বন্ধ করতে সাহায্য করে ভিটামিন ‘K’ (২৬তম বিসিএস)।
    31) যে মসৃণ তলে আলোর নিয়মিত প্রতিফলন ঘটে দর্পণ। (২৩ তম BCS )
    32) যে হরমোনের অভাবে ডায়াবেটিস রোগ হয় ইনসুলিন (২০তম বিসিএস)।
    33) রঙ্গীন টেলিভিশন হতে ক্ষতিকর যে রশ্মি বের হয় গামা রশ্মি। (২৪ তম BCS )
    34) রেফ্রিজারেটরে কমপ্রেসরের কাজ ফ্রেয়নকে বাষ্পে পরিণত করা (২৮তম বিসিএস)।
    35) শব্দের তীব্রতা নির্ণায়ক যন্ত্র অডিও মিটার (২৬তম বিসিএস)।
    36) সমুদ্র পৃষ্ঠে বায়ুর চাপ প্রতি বর্গ সেন্টিমিটারে ১০ নিউটন। (১০ তম BCS)
    37) সমুদ্রের গভীরতা মাপা হয় যে যন্ত্র দ্বারা ফ্যাদোমিটার। (২০ তম BCS )
    38) সালোক সংশ্লেষণ সবচেয়ে বেশি পরিমাণে হয় সবুজ আলোতে (২৬তম বিসিএস)।
    39) সিনেমাস্কোপ প্রজেক্টরে যে ধরনের লেন্স ব্যবহৃত হয় অবতল (১৩তম বিসিএস)।
    40) CNG -এর অর্থ কমপ্রেস করা প্রাকৃতিক গ্যাস (২৫তম বিসিএস)।
  • অতিরিক্ত কিছু প্রশ্ন ঃ
  • 41) অ্যাসিড আবিস্কার হয় কবে ? ১৯৮১ সালে
    42) অ্যাসিড নীল লিটমাস পেপারকে কী করে ? লাল করে
    43) আকাশ নীল দেখায় কেন ? নীল আলোর বিক্ষেপণ অপেক্ষাকৃত বেশি
    44) আকাশে মেঘ থাকলে গরম বেশি লাগে কেন ? মেঘ ভূ-পৃষ্ঠের তাপ বিকিরণে বাধা দেয় বলে
    45) আঙ্গুরে কোন অ্যাসিড থাকে ? টারটারিক অ্যাসিড
    46) আধুনিক কম্পিউটার কে আবিস্কার করেন ? চার্লস ব্যাবেজ
    47) আপেলে কোন অ্যাসিড থাকে ? সালিক অ্যাসিড
    48) আমলকিতে কোন অ্যাসিড থাকে ? অক্সালিক অ্যাসিড
    49) আমিষ জাতীয় খাদ্য কোন জারক রস পরিপাক করে ? পেপসিন
    50) আয়নার পিছনে কিসের প্রলেপ দেয়া হয় ? সিলভারের
    51) আয়োডিন প্রকৃতিতে কিভাবে থাকে ? কঠিন অবস্থায়
    52) আলকাতরা কী থেকে তৈরী হয় ? কয়লা
    53) আলোর গতির আবিস্কারক কে ? এ মাইকেলসন
    54) ইউরোসিল কোথায় থাকে? – RNA তে।
    55) ইনসুলিন কোথায় উত্পন্ন হয় ? অগ্নাশয়ে
    56) ইন্টারফেরন কি? ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র অনেক গুলো প্রোটিনের সমষ্টি যা দেহের রোগ প্রতিরোধ  ক্ষমতা বাড়ায়
    57) ইলেকট্রন কে আবিস্কার করেন ? জন থম্পসন
    58) ইস্পাত তৈরিতে লোহার সাথে কী মিশাতে হয় ? কার্বন
    59) ইস্পাতে কার্বনের শতকরা পরিমাণ কত ? ০.১৫ – ১.৫ %
    60) উচ্চ শ্রেনীর প্রটিন সমৃদ্ধ খাবার কোনটি ? শুটকি>মসুর ডাল>মাংশ
    61) উড পেন্সিলের শীষ কী দিয়ে তৈরী হয় ? গ্রাফাইট
    62) ‘উড স্পিরিট ‘ কী ? মিথাইল এলকোহল
    63) উড়োজাহাজের গতি নির্ণায়ক যন্ত্রের নাম কী ? ট্যাকমিটার
    64) উদ্ভিদ বিজ্ঞানের জনক কে ? থিও ফ্রাসটাস
    65) উদ্ভিদের জীবন্ত জীবাশ্ম কোনটি ? Cycas .
    66) উদ্ভিদের প্রজনন অঙ্গ কোনটি ? ফুল
    67) একোয়া রেজিয়া বা রাজ  অম্ল কাকে বলে ? ৩:১ অনুপাতের নাইট্রিক ও হাইড্রক্লোরিক অ্যাসিড
    68) এটম বোমা কে আবিস্কার করেন ? অটোহ্যান
    69) এন্টামিবার সংখ্যাধিক্যে মানব দেহে কী সৃষ্টি হয় ? আমাশয়
    70) এ্যাক্টোডার্মাল ডিসপ্লেসিয়া > ঘামগ্রন্থি ও দাঁতের অনুপস্থিতি
  • 71) কচু খেলে গলা চুলকায় কিসের উপস্থিতির জন্য ? ক্যালসিয়াম অক্্রলিক
    72) কচু শাকে কি বেশি থাকে ? লৌহ
    73) কঠিন পদার্থে তাপ কোন পদ্ধতিতে প্রবাহিত হয় ? পরিবহন পদ্ধতিতে
    74) কফিতে কোন উপাদান থাকে ? ক্যাফেইন
    75) কমলা লেবুতে কোন অ্যাসিড পাওয়া যায় ? এসকরবিক অ্যাসিড
    76) কম্পাঙ্ক বাড়লে শব্দের তীক্ষ্নতা ? বাড়ে
    77) কম্পিউটার কে আবিস্কার করেন ? হাওয়ার্ড এইকিন
    78) কয়টি পদ্ধতিতে তাপ পরিবহন হয় ? ৩ টি
    79) কাঁদুনে গ্যাস এর রাসায়নিক নাম কী ? করপিক্রিন
    80) কাচ তৈরির প্রধান কাঁচামাল কী ? বালি
    81) কান্সারকে নিয়ন্ত্রণ করার প্রাথমিক পদক্ষেপ কোনটি? ইন্টারফেরণ প্রয়োগ
    82) কুইনাইন পাওয়া যায় কোন গাছ থেকে ? সিনকোনা
    83) কে প্রথম রোবট আবিস্কার করেন ? উইলিয়াম গে ওয়ালটার
    84) কে মেন্ডেলের ফ্যাক্টরের নাম দিয়েছিলেন জিন? বেটসন ( ১৯০৮ সালে।
    85) কেচো কিসের সাহায্যে শ্বাসকার্য চালায় ? ত্বকের
    86) কোন অধাতু বিত্দুত অপরিবাহী ? গ্রাফাইট
    87) কোনটি উদ্ভিদ আমিষ? ডাল
    88) কোন এনজাইমের দ্বারা কাটা ডিএনএ জোড়া দেওয়া হয়? লাইগেজ।
    89) কোন গ্রুপের রক্তকে সর্বজন গ্রহীতা বলে ? এবি গ্রুপ কে
    90) কোন গ্রুপের রক্তকে সর্বজনীন দাতা বলে ? ও গ্রুপ
    91) কোন জন্তুর চারটি পাকস্থলী আসে ? গরুর
    92) কোন জলজ জীবটি বাতাসে নিঃশ্বাস নেয় ? শুশুক
    93) কোন ধাতু সবচেয়ে ক্ষয়প্রাপ্ত হয় ? তামা
    94) কোন মস্তিস্ক যে কোনো সিদ্ধান্ত দ্রুত দিতে পারে ? পুরুষ
    95) কোন মাধ্যমে শব্দের গতি সবচেয়ে বেশি ? কঠিন মাধ্যমে
    96) কোন মৌলিক অধাতু সাধারণ তাপমাত্রায় তরল থাকে ? ব্রোমিন
    97) কোন মৌলিক ধাতু সাধারণ তাপমাত্রায় তরল থাকে ? পারদ
    98) কোন রংয়ের কাপে চা তারাতারি ঠান্ডা হয় ? কালো
    99) কোন স্তন্যপায়ী প্রাণী ডিম পারে ? প্লাটিপাস
    100) কোনো পদার্থের পারমানবিক সংখ্যা হলো ? পরমানুর প্রোটন সংখ্যা
  • 101) কোষের কাজ নিয়ন্ত্রণ করে কে ? নিউক্লিয়াস
    102) ক্যালকুলাস কে আবিস্কার করেন? নিউটন
    103) ক্রোমোজোমে কোন কোন মৌলিক পদার্থ থাকে? ক্যালসিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম , লৌহ
    104)ক্রোমোজোমের প্রোটিন কয় প্রকার ।? ২ প্রকার। ১. হিস্টোন ২. নন-হিস্টোন
    105) ক্লোন পদ্ধতিতে প্রথম ভেড়ার নাম কী ? ডলি
    106) ক্লোনিং কত প্রকার? ৩প্রকার । জিন , সেল, জীব ক্লোনিং।
    107) ক্লোরিন প্রকৃতিতে কিভাবে থাকে ? গ্যাসীয় অবস্থায়
    108) ক্ষতস্থান থেকে রক্ত পরা বন্ধ করে কোন ভিটামিন ? ভিটামিন-কে ] 109) ক্ষার লাল লিটমাস পেপারকে কী করে ? নীল করে
    110) খাদ্য শক্তি বেশি থাকে কোন মাছে ? শুটকি মাছে
    111) খাবার লবনের রাসায়নিক নাম কী ? সোডিয়াম ক্লোরাইড
    112) গলগন্ড রোগ হয় কিসের অভাবে ? আয়োডিনের অভাবে
    113) গ্যাভানাইজিং কী ? লোহার উপর দস্তার প্রলেপ
    114) গ্রীষ্ম কালে কোন ধরনের কাপড় পরিধান করা ভালো ? সাদা
    115) চাদে কোনো শব্দ করলে শোনা যায় না কেন ? বাতাস নেই বলে
    116) চাদের বুকে অবতরণ করা চন্দ্রযানের নাম কী ? অ্যাপোলো -১১
    117) চাদের বুকে কে প্রথম অবতরণ করে ? নীল আর্মস্ট্রং ও এডউইন অল্ড্রিন
    118) চাদের বুকে প্রথম মানুষ অবতরণ করে ? ২১ জুলাই , ১৯৬৯ সালে
    119) চায়ের পাতায় কোন উপাদান থাকে ? থিন
    120) চুম্বুকের আকর্ষণ সবচেয়ে বেশী কোথায় ? মেরু বিন্দুতে
    121) জীনের রাসায়নিক গঠন কী ? ডি এন এ
    122) জীব RNA কোষে কয় প্রকার? -৩প্রকার । rRNA, mRNA, tRNA.
    123) জীব জগতের বৈচিত্রের নিয়ন্ত্রককে? -জীন
    124) জীব দেহের শক্তির উত্স কী ? খাদ্য
    125) জীব প্রযুক্তি ব্যবহার করে উদ্ভাবিত নতুন প্রাণী কিংবা উদ্ভিদকে কি বলে? ট্রান্সজেনিক প্রানী
    126) জীব প্রযুক্তির উদাহরণ কোন গুলো ? অনুজীব বিজ্ঞান, টিস্যু কালচার , জিন প্রকৌশল
    127) জীব বিজ্ঞানের জনক কে ? এরিস্টটল .
    128) জীব সংরক্ষণ ও পচন নিবারণের জন্য কী ব্যাবহৃত হয় ফরমালিন
    129) জীবাণু বিদ্যার জনক কে ? ভন লিউয়েন হুক .
    130) জীবের বংশ গতির একক কোনটি ? জিন
    131) জুভেনাইল গ্লুকোমা অক্ষিগোলোকের কাঠিন্য
    132) টুথপেস্টের প্রধান উপাদান কী ? সাবান ও পাউডার
    133) টেলিভিশন কে আবিস্কার করেন ? জন এল বেয়ার্ড
    134) টেস্টিং সল্ট এর রাসায়নিক নাম কী ? সোডিয়াম মনো গ্লুটামেট
    135) ট্রান্সজেনিক প্রানী উদ্ভাবনের মাধ্যমে প্রাণীগুলোর দুধ, রক্ত, মূত্র থেকে প্রয়োজনীয় ওষুধ আহোরণ করার প্রক্রিয়াকে কি বলে? মলিকুলার ফার্মিং
    136) ঠোটের কোনা মুখের ঘা কিসের অভাবে হয় ? ভিটামিন – বি -২
    137) ডায়বেটিস রোগ হয় কীসের অভাবে ? ইনসুলিন
    138) ডিএনএ টেস্টের মাধ্যমে পিতামাতা- সন্তান কত ভাগ মিল পাওয়া যায় ? ৯৯.৯%
    139) ড্রাই আইস বা শুস্ক বরফ কাকে বলে ? কঠিন কার্বন ডাই অক্সাইড কে
    140) ত্বকের সাহায্যে শ্বাসকার্য চালায় কে ? কেঁচো
    141) তরঙ্গ দর্ঘ্য বাড়লে শব্দের তীব্রতা? কমে
    142) তরল পদার্থে তাপ কোন পদ্ধতিতে প্রবাহিত হয় ? পরিচলন পদ্ধতিতে
    143) তামাকে বিষাক্ত কোন পদার্থ থাকে ? নিকোটিন
    144) তামার সাথে টিন মিশালে কী উত্পন্ন হয় ? ব্রোঞ্জ
    145) তামার সাথে দস্তা বা জিঙ্ক মেশালে কি উত্পন্ন হয় ?  পিতল
    146) তেঁতুলে কোন অ্যাসিড থাকে ?  টারটারিক অ্যাসিড
    147) থাইমিন কোথায় থাকে?  ডিএনএ ।
    148) দই কি ?  দুধের জমাট বাঁধা ব্যাকটেরিয়া
    149) দাড়ি গোফ গজায় কোন হরমোনের কারণে ?  টেসটেস্টোরেন হরমোন
    150) দিনের আলোতে কাজ করে চোখের কোন অংশ?  কনস

bdgovtjobcircular.com Logo

  • 151) দুধে কোন অ্যাসিড থাকে ? ল্যাকটিক অ্যাসিড
    152) দুধের ঘনত্ব কোন যন্ত্র দিয়ে মাপা হয় ? ল্যাকটোমিটার
    153) দুধের প্রোটিনের নাম কী ? কেজিন
    154) দুধের শর্করাকে কী বলে ? ল্যাকটোজ
    155) দৃশ্যমান বর্ণালীর ক্ষুদ্রতম তরঙ্গ দৈর্ঘ্য কোন আলোর ? বেগুনী
    156) দৃশ্যমান বর্ণালীর বৃহত্তম তরঙ্গ দৈর্ঘ্য কোন আলোর ? লাল
    157) নবায়নযোগ্য শক্তির উত্স কোথায় ? ফুয়েল সেল
    158) নাড়ির স্পন্দন প্রভাবিত হয় কিসের মাধ্যমে ? ধমনীর মাধ্যমে
    159) নারী পুরুষের মধ্যে কার তথ্য ধারণ ক্ষমতা বেশি ? নারীর
    160) নাসা প্রতিষ্ঠিত হয় কত সালে ? ১৯৫৮ সালে
    161) নাসার সদর দপ্তর কোথায় অবস্থিত ? যুক্তরাষ্টের ফ্লোরিডায়
    162) নিউট্রন আবিস্কার করেন কে ? চ্যোডইউক
    163) নিউমোনিয়া রোগ হয় কোথায় ? ফুসফুসে
    164) নিম্ন শ্রেনীর প্রটিন সমৃদ্ধ খাবার কোনটি ? ডাল
    165) পরমানুর চার্জ নিরপেক্ষ কণিকা কোনটি ? নিউট্রন
    166) পরমানুর নিউক্লিয়াসে কি থাকে ? প্রোটন ও নিউট্রন
    167) পরমানুর নেগেটিভ চার্জযুক্ত কণিকা কোনটি ? ইলেকট্রন
    168) পরমানুর পজেটিভ চার্জযুক্ত কণিকা কোনটি ? প্রোটন
    169) পরমানুর সর্বাপেক্ষা হালকা কোনা কোনটি ? ইলেকট্রন
    170) পারমানবিক বোমা কে আবিস্কার করেন ? ওপেন হেমার
    171) পাহাড়ে ওঠা কষ্টকর কেন? অভিকর্ষজ বলের বিপরীতে কাজ করার জন্য
    172) পুরুষ মানুষের জনন বৈশিস্টের জন্য দায়ী কোন ক্রোমোজম ? Y ক্রোমোজম
    173) পূর্ণাঙ্গ স্নায়ু কোষকে কী বলে? নিউরন
    174) পৃথিবীতে মোট মৌলিক পদার্থের সংখ্যা কত ? ১০৯ টি
    175) পৃথিবীর কেন্দ্রস্থলে বস্তুর ওজন কেমন ? শূন্য
    176) পৃথিবীর ক্ষুদ্রতম স্তন্যপায়ী প্রাণী কোনটি ? বামন চিকা
    177) পৃথিবীর দ্রুততম পাখি কোনটি ? সুইফট বার্ড
    178) পৃথিবীর প্রথম মহাকাশচারী কে ? উইরি গ্যাগারিন (১৯৬১ সালে)
    179) পেনিসিলিন কে আবিস্কার করেন ? আলেকজান্ডার ফ্লেমিং
    180) পেসমেকার কে আবিস্কার করেন ? জার্মানির সিমেন্স এলিয়া কোম্পানী , ১৯৫৮ সালে
    181) প্রকৃতিতে প্রাপ্ত মৌলের মধ্যে ধাতুর সংখ্যা কতটি ? ৭০ টি
    182) প্রকৃতিতে প্রাপ্ত মৌলের সংখ্যা কতটি ? ৯২ টি
    183) প্রকৃতিতে রেডিও আইসোটোপের সংখ্যা কত ? ৫০ টি
    184) প্রকৃতিতে সবচেয়ে কঠিন পদার্থ কোনটি ? হীরা
    185) প্রতি মিনিটে হৃদপিন্ডের সাভাবিক স্পন্দন কত ? ৭২ বার
    186) প্রথম কম্পিউটার প্রোগামের রচয়িতা কে ? লেডী এ্যাডো অগাস্টা
    187) প্রাকৃতিক গ্যাস এর প্রধান উপাদান কী ? মিথেন
    188) প্রাকৃতিক লাঙ্গল বলা হয় কাকে? কেঁচো
    189) প্রাণী কোষের পাওয়ার হাউস বলা হয় কাকে? মাইটোকন্ড্রিয়া
    190) প্রাণীর প্রজনন কাজে প্রয়োজন কোন ভিটামিন? ভিটামিন-ই
    191) প্রেসার কুকারে রান্না তারাতারি হওয়ার কারণ কী ? উচ্চ চাপে তরলের স্ফুটনাংক বৃদ্ধি
    192) প্রোটন কণিকা আবিস্কার করেন কে ? রাদারফোর্ড
    193) প্রোটিন জাতীয় খাদ্যের প্রধান কাজ কী ? দেহের ক্ষয় পূরণ ও বৃদ্ধি সাধন
    194) ফারেনহাইট স্কেল এ মানব দেহের সাভাবিক উষ্ণতা কত ? ৯৮.৪ ডিগ্রী
    195) ফুলকার সাহায্যে শ্বাসকার্য চালায় কোন প্রাণী? মাছ
    196) বংশ গতিবিদ্যার জনক কে? মেন্ডেল
    197) বংশগতির ভৌত ভিত্তি কে? ক্রোমোজোম
    198) বট গাছের আঠায় কোন এমজাইম থাকে? ফাইসিন । যা কৃমিরোগে ব্যবহৃত হয় ।
    199) বাংঙের হৃতপিন্ডের প্রকোষ্ট কয়টি ? ৩ টি
    200) বাংলাদেশের একটি জীবন্ত জীবাশ্ম কাকে বলে ? রাজ কাঁকড়া

if you like this post please don’t forget to share this post with your friend.

 

৪৫ টি ইংরেজি শব্দ যা থেকে পরীক্ষায় প্রশ্ন থাকে

৪৫ টি ইংরেজি মৌলিক শব্দ

৪৫ টি মৌলিক শব্দ যেগুলার প্রাধান্য Exam গুলাতে সবথেকে বেশি।এই Word + এদের Synonym গুলা আয়ত্ব করতে পারলে 80-90% ক্ষেত্রে আপনি Vocabulary Related Questions গুলার সঠিক Answer দিতে পারবেন।

45 most important english words

আপনাদের সহজভাবে বুঝানোর জন্য আমাদের এই পোস্টে আমরা ২টি শ্রেণীতে ভাগ করেছি তাই পোস্টটি একটু বড় হয়েছে।প্রথমে আমরা মূল শব্দ ও অর্থ দিয়েছি পরে শব্দগুলার সমার্থক শব্দ দিয়েছি।

Words (৪৫ টি ইংরেজি মৌলিক শব্দ):

একগুঁয়ে/অনমনীয় (Obdurate), ক্ষতিকর (Deleterious), বিসদৃশ (Discordant), অলস (Indolent), স্থির (Stagnant), আকর্ষণ করা (Attract), স্বল্পভাষী (Taciturn), প্রশংসা করা (Praise), আশাবাদী (Optimistic), শান্ত (Calm), সুবিবেচনাপূর্ণ (Meticulous), সম্মত হওয়া (Concur), স্পষ্ট (Articulate), শ্রদ্ধাভক্তি (Veneration), Repudiate (পরিত্যাগ করা), বন্ধুসুলভ (Genial), নিন্দা করা (Criticize), স্বচ্ছ (Limpid), অনিয়মিত (Capricious), নমনীয়/বাধ্য (Submissive), আধিক্য (Plethora), তাৎক্ষণিক (Impromptu), হ্রাস/প্রশমিত করা (Assuage), ভাসা-ভাসা (Perfunctory), আনুষঙ্গিক (Peripheral), ধ্বংস করা (Ruin), প্রচলিত (Orthodox), নবিস (Neophyte), স্বাধীন করা (Emancipate), শব্দবাহুল্য (Wordiness), আনন্দময় (Joyful), বিহ্বলতা (Puzzle), দুর্বল(Feeble), জ্ঞানী (Sagacious), অদক্ষ (Unskilled), দক্ষ (Expert), অস্বচ্ছ (Obscure), বাঁধা (Obstacles), দুর্দশা (Misery), বিলাপ করা (Moan), সেকেলে (Obsolete), প্লাবিত করা (Indulge), সহানুভূতিশীল (Sympathetic), পুনরুজ্জীবিত করা (Revive), বাধ্যতামূলক (Obligatory), পরাজিত করা (Defeat).

 

The synonyms words of these 45 English words  (৪৫ টি ইংরেজি শব্দ ) is given below:-

  1. Obdurate (অনমনীয়) = Stubborn, Obstinate, Intransigent, Inflexible, Unbending, Pig-Headed, Mulish, Headstrong, Adamant.
  2. Deleterious (ক্ষতিকর) = Unfortunate, Detrimental, Unwholesome, Baleful, Noxious, Toxic, Lethal, Malign, Malignant, Malevolent.
  3. Indolent (অলস) = Slothful, Sluggard, Lackadaisical, Languid, Inert, Sluggish, Lethargic, Torpid.
  4. Stagnant (স্থির) = Motionless, Static, Stationary, Slack, Putrid, Sluggish, Dormant.
  5. Attract (আকর্ষণ করা) = Magnetize, Entice, Allure, Lure, Tempt, Enchant, Entrance, Captivate, Beguile, Bewitch, Seduce, Titillate.
  6. Taciturn (স্বল্পভাষী) = UN-talkative, Reticent, Tight-Lipped, Mute, Dumb, Inarticulate, Reserved.
  7. Praise (প্রশংসা করা) = Commend, Applaud, Eulogize, Worship, Glorify, Exalt, Lionize, Hail, Venerate.
  8. Optimistic (আশাবাদী) = Sanguine, Positive, Bullish, Buoyant, Promising, Auspicious, Propitious.
  9. Calm (শান্ত) = Serene, Tranquil, Unruffled, Unperturbed, Placid, Phlegmatic.
  10. Meticulous (সুবিবেচনাপূর্ণ) = Careful, Conscientious, Diligent, Scrupulous, Punctilious, Painstaking, Studious, Rigorous, Perfectionist, Fastidious, Methodical.
  11. Concur (সম্মত হওয়া) = Agree, Go Along, Consent, Assent, Accord, See Eye To Eye, Acquiesce.
  12. Articulate (স্পষ্ট) = Eloquent, Fluent, Persuasive, Lucid, Silver-Tongued, Intelligible, Enunciate.
  13. Veneration (শ্রদ্ধাভক্তি) = Reverence, Exaltation, Esteem, Deference, Felicitations, Salutation.
  14. Repudiate (পরিত্যাগ করা) = Renounce, Abandon, Disown, Revoke, Rescind, Nullify.
  15. Genial (বন্ধুসুলভ) = Affable,:((:-*#) Cordial, Amiable, Approachable, Sociable, Convivial.
  16. Criticize (নিন্দা করা) = Censure, Denounce, Condemn, Pillory, Disparage, Belittle, Denigrate, Deprecate, Trivialize, Vilify, Scorn, Mock, Chastise, Reprimand, Castigate.
  17. Limpid (স্বচ্ছ) = Transparent, Crystal, Glassy, Translucent, Pellucid, Lucid, Vivid.
  18. Capricious (অনিয়মিত) = Fickle, Inconsistent, Variable, Mercurial, Volatile, Unpredictable, Temperamental, Whimsical, Fanciful, Quirky, Faddish.
  19. Submissive (বাধ্য) = Obedient, Yielding, Compliant, Acquiescent, Biddable, Dutiful, Docile, Pliant, Pliable.
  20. Plethora (আধিক্য) = Excess, Abundance, Glut, Superfluity, Surfeit, Profuse, Copious, Prolific, Lavish, Extravagant.
  21. Impromptu (তাৎক্ষণিক) = Unrehearsed, Unprepared, Extempore, Improvised, Spontaneous.
  22. Assuage (হ্রাস/প্রশমিত করা) = Relieve, Alleviate, Soothe, Mitigate, Allay, Palliate, Abate, Suppress, Subdue, Tranquilize, Appease, Indulge, Satiate.
  23. Perfunctory (ভাসা-ভাসা/দ্রুত) = Cursory, Desultory, Quick, Hasty, Fleeting, Superficial, Careless.
  24. Peripheral (আনুষঙ্গিক) = Secondary, Subsidiary, Incidental, Tangential, Ancillary, Outlying.
  25. Ruin (ধ্বংস করা) = Collapse, Disintegration, Dilapidation, Demolition, Wreckage.
  26. Orthodox (প্রচলিত) = Conventional, Mainstream, Conformist, Conservative, Prevalent.
  27. Neophyte (নবিস) =Novice, Beginner, Newcomer, Postulation, Tyro, Apprentice.
  28. Emancipate (স্বাধীন করা) = Liberate, Unchain, Unyoke, Rescue, Enfranchise.
  29. Wordy (শব্দবহুল) = Verbose, Loquacious, Garrulous, Prolix, Voluble, Neoplastic.
  30. Joyful (আনন্দময়) = Cheerful, Merry, Bubbly, Exuberant, Ebullient, Jubilant, Euphoric.
  31. Puzzle (বিহ্বলতা) = Perplex, Bewilder, Bemuse, Mystify, Confound, Ponder, Enigma, Paradox.
  32. Feeble (দুর্বল) = Weak, Frail, Delicate, Sickly, Spineless, Timid, Ineffectual.
  33. Sagacious (জ্ঞানী) = Sage, Astute, Shrewd, Prudent, Judicious, Insightful.
  34. Unskilled (অদক্ষ) = Inexpert, Amateurish, Blue-Collar, Amateur, Inept, Maladroit, Clumsy, Awkward, Bungling.
  35. Skilled (দক্ষ) = Proficient, Adept, Adroit, Dexterous, Accomplished.
  36. Obscure (অস্বচ্ছ/অস্পষ্ট) = Vague, Dubious, Hazy, Ambiguous, Oracular, Blurry, Opaque, Abstruse.
  37. Obstacle (বাঁধা) = Hurdle, Stumbling, Impediment, Hindrance, Handicap, Deterrent.
  38. Misery (দুর্দশা) = Distress, Anguish, Anxiety, Angst, Grief, Despair, Dejection, Gloom.
  39. Moan (বিলাপ করা) = Groan, Wail, Whimper, Sob, Cry, Sough, Murmur, Grouse.
  40. Obsolete (সেকেলে) = Out Of Date, Outworn, Antiquated, Antediluvian, Anachronistic, Archaic.
  41. Swamp (প্লাবিত করা) =Flood, Inundate, Deluge, Immerse, Soak, Drench, Saturate, Overwhelm.
  42. Sympathetic (সহানুভূতিশীল) = Compassionate, Solicitous, Empathetic, Commiserative, Consoling, Congenial.
  43. Revive (পুনরুজ্জীবিত করা) = Resuscitate, Bring Round, Come Round, Reinvigorate, Revitalize, Restore, Rejuvenate.
  44. Obligatory (বাধ্যতামূলক) = Compulsory, Mandatory, Statutory, Incumbent, Imperative, Requisite, Essential.
  45. Defeat (পরাজিত করা) = Beat, Conquer, Triumph Over, Trounce, Subdue, Slaughter, Demolish.

We have a separate category for English jobs preparation that is  ইংরেজি ভাষা ও সাহিত্য

আপনার সকল পরীক্ষায় – সরকারি চাকরি পরীক্ষা, ব্যাংক চাকরি পরীক্ষা, ভর্তি পরীক্ষা ইত্যাদি পরীক্ষার প্রস্তুতির জন্য ইংরেজি সম্পর্কে বা ইংরেজি বিষয়ে সম্পূর্ণ অনলাইন প্রস্তুতির লক্ষ্যে আমাদের ওয়েবসাইটে আলাদা ইংরেজি বিষয়ে পেইজ আছে। এখন থেকে আপনি সম্পূর্ণরূপে অনলাইনে ইংরেজি সম্পর্কে বা ইংরেজি বিষয়ে সকল পরীক্ষার প্রস্তুতি নিতে পারবেন। আমাদের ওয়েবসাইট আপনার অনলাইন বই পাঠাগার হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করার লক্ষ্যে আমাদের প্রয়াস। আমাদের পোস্ট ভাল লাগলে, দয়াকরে শেয়ার করতে ভুলবেন না। কারন আপনাদের সহযোগিতা আমাদের একান্ত দরকার ।

Bdgovtjobcircular.com can be your favorite online books library . That’s why We need your valuable support. So If you like this post please don’t forget to share this post. Knowledge share can helps your friends .
You can connect with us : https://www.facebook.com/bdgovtjobspreparation/ or  click Facebook logo which is right corner of top header.

আপনার যদি ইংরেজি বিষয়ে কোন কিছু জানার থাকে দয়া করে কমেন্ট বক্সে জানান।

37th BCS Preli Final Model Test 01

This post about 37th BCS Preliminary examination Final Model Test 01,2016. This model test including all subject from BCS Syllabus such as Bangla,English,Mathematics,International affairs,Bangladesh affairs,General Knowledge etc.This Model test created by a popular Facebook study Group  BCS Spotlight. You can read this model test easily with answers books. You can also download pdf file to read this model test books later.Examination details are given below :

Set Number : 01
Exam Name : 37th BCS Preli Final Model Test 01
Code name: Rajnigandha
Time : 2 Hours
Full Marks: 200
Date: 19 Sep 2016

Model Test Questions and Answers Images are given Below :

bcs-model-test-01-1 bcs-model-test-01-2 bcs-model-test-01-3 bcs-model-test-01-4 bcs-model-test-01-5 bcs-model-test-01-8 bcs-model-test-01-9 bcs-model-test-01-10 bcs-model-test-01-11 bcs-model-test-01-12 bcs-model-test-01-15 bcs-model-test-01-16 bcs-model-test-01-17

To Download Pdf With answers please click Below:
37th-bcs-preliminary-model-test-1-answer

৩৭তম বিসিএস প্রিলিমিনারি প্রস্তুতি | মডেল টেস্ট ০১

৩৭তম বিসিএস প্রিলিমিনারি প্রস্তুতি | মডেল টেস্ট ০২

৩৭ তম BCS প্রিলি বাংলা সাহিত্য চূড়ান্ত সাজেশন (পর্ব ০২)

৩৭ তম বিসিএস প্রিলি পরীক্ষা বাংলা সাহিত্য চূড়ান্ত সাজেশন (পর্ব ০১)  এর পর আমাদের এই ৩৭ তম বিসিএস প্রিলি বাংলা সাহিত্য চূড়ান্ত সাজেশন (পর্ব ০২) যা বাংলা সাহিত্য নিয়ে শেষ পর্ব ।আশা করছি  আপনাদের ৩৭ তম বিসিএস প্রিলি পরীক্ষায় বাংলা সাহিত্য  নিয়ে এই পোস্ট কাজে দেবে।

 

প্রসঙ্গ :- ৩৭ তম বিসিএস প্রিলি
বিষয় :- বাংলা সাহিত্য (পর্ব ০২)

৫২. কলকাতায় রঙ্গমঞ্চ তৈরি হয় :- ১৭৫৩ সালে।

৫৩. বাংলা সাহিত্যের প্রথম উল্লেখযোগ্য ইতিহাস গ্রন্থ :-বঙ্গভাষা ও সাহিত্য (ড. দীনেশচন্দ্র সেন)

৫৪. নেমেসিস নাটকে নুরুল মোমেন কোন বিষয়কে তুলে ধরেছেন :- পঞ্চাশের মন্বন্তর

৫৫. “ভলগা থেকে গঙ্গা” ভ্রমণ কাহিনীটির রচয়িতা :- রাহুল সংস্কৃত্যায়ন।

৫৬. পালামৌ কোন ধরনের সাহিত্যকর্ম :- ভ্রমণকাহিনী(সঞ্জীব চট্টোপাধ্যায়)

৫৭. “প্রেম যেখানে সর্বস্ব ” কোন ধরনের সাহিত্যকর্ম :- ভ্রমণ কাহিনী (সৈয়দ আলী আহসান)

৫৮. কখনো উপন্যাস লেখেন নি :- সুধীন্দ্রনাথ দত্ত।

৫৯. শাহানামা বাংলায় অনুবাদ করেন :- মোজাম্মেল হক

৬০. প্রাগৈতিহাসিক, সরীসৃপ, আত্মহত্যার অধিকার – গল্পের লেখক :- মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়

৬১. প্রথম বাংলা থিসরাস বা সমার্থক শব্দ অভিধান সংকলন করেন :- অশোক মুখোপাধ্যায়।

৬২. “The liberation of Bangladesh ” গ্রন্থের রচয়িতা :- মেজর জেনারেল সুখওয়ান্ত সিং

৬৩. ভীমসিং, বিলাসবতী কোন নাটকের চরিত্র :- কৃষ্ণকুমারী।(মধুসূদন দত্ত)

৬৪. জীবনানন্দ, ষোাড়শী — কোন উপন্যাসের চরিত্র:- দেনাপাওনা (শরৎচন্দ্র)

৬৫. “লীলাবতী” নাটকটির নাট্যকার :-দীনবন্ধু মিত্র

৬৬. দুর্গেশনন্দিনী উপন্যাসের প্রকাশকাল :- ১৮৬৫

৬৭. মেঘনাদবধ কাব্যের প্রকাশকাল :- ১৮৬১

৬৮. হিং টিং ছট ” কবিতার কবি কে :- রবীন্দ্রনাথ (সোনারতরী কাব্যগ্রন্থ)

৬৯. রবীন্দ্রনাথের প্রথম গদ্য গ্রন্থ : য়ুরোপ প্রবাসীর পত্র।

৭০. বাংলা সাহিত্যের প্রথম স্বার্থক ছোট গল্প :- দেনাপাওনা (রবীন্দ্রনাথ)

৭১. দেবানন্দপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন :- শরৎচন্দ্র

৭২. বেগম রোকেয়ার জন্ম :- রংপুর (১৮৮০)

৭৩. বেগম রোকেয়া দিবস :- ৯ ডিসেম্বর

৭৪. “বাংলার আঞ্চলিক ভাষার অভিধান” গবেষনামূলক গ্রন্থের রচয়িতা : ড. মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ।

৭৫. “বাঙ্গালীর ইতিহাস” বইটির লেখক :- নীহারঞ্জন রায়

৭৬. “আত্মঘাতী বাঙ্গালী” কার রচিত গ্রন্থ :- নীরদচন্দ্র চৌধুরী।

৭৭. “আমার দেখা রাজনীতির পঞ্চাশ বছর ” গ্রন্থটির রচয়িতা কে :- আবুল মনসুর আহমেদ।

৭৮.”কবিতার কথা ” কোন ধরনের সাহিত্য কর্ম :- প্রবন্ধ (জীবনানন্দ দাশ)

৭৯. ক্লিন্টন বুথ সিলি কোন কবির উপর গবেষনা করেন :- জীবনানন্দ দাশ(তিমির হননের কবি)

৮০. জীবনানন্দ দাশের কবিতাকে কে চিত্ররূপময় কবিতা বলেছেন:- রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

৮১. কাজী নজরুল ইসলামে মৃত্যু :- ১২ ভাদ্র, ১৩৮৩ (২৯আগস্ট, ১৯৭৬)

৮২. ‘ধূপছায়া’ চলচ্চিত্রে নজরুল কিসের ভূমিকাই অভিনয় করেন :- নারদ

৮৪.কতসালে নজরুল ইসলামকে জাতীয় কবির মর্যাদা দেওয়া হয় : ১৯৭৪ সালে।

৮৫. জসীম উদ্দীনের রচিত উপন্যাস : ১টি (বোবা কাহিনী)

৮৬. “কাফনের মিছিল” কাব্যগ্রন্থের কবি :- জসীম উদ্দীন

৮৭.বাঙ্গালী মুসলমান কবিদের মধ্যে প্রথম মহাকাব্য রচনা করেছেন : কায়কোবাদ(মহাশ্মশানন)

৮৮. “বিরহ বিলাপ” কাব্যগ্রন্থটি কার:- কায়কোবাদ

৮৯. বাসন্তী, কিশোর – চরিত্রগুলো কোন উপন্যসের :- তিতাস একটি নদীর নাম (অদ্বৈত মল্লবর্মণ)

৯০. “পাখির কাছে ফুলের কাছে ” শিশুতোষ গ্রন্থটির রচয়িতা :- আল মাহমুদ

৯১. ইউনেস্কো কর্তৃক আন্তর্জাতিক কলিঙ্গ পুরষ্কার লাভ করেন:- আব্দুল আল মুতী শরফুদ্দীন(১৯৮৩)

৯২. “রাণী খালের সাঁকো ” উপন্যাসের রচয়িতা :- আহসান হাবীব।

৯৩. সূর্যদীঘল বাড়ি, পদ্মার পলিদ্বীপ, উপন্যাসের রচয়িতা :-আবু ইসহাক।

৯৪. সম্প্রতি খুঁজে পাওয়া জীবনানন্দ দাশের উপন্যাসের নাম কি :- কল্যানী

৯৫. শেষ বিকেলের মেয়ে, কয়েকটি মৃত্যু – উপন্যাসগুলোর ঔপন্যাসিক :- জহির রায়হান।

৯৬. মুনিম, আসাদ, রসুল, সালমা – চরিত্রগুলো কোন উপন্যাসের :- আরেক ফাল্গুন

৯৭. হাঁসুলী বাঁকের উপকথা, শতাব্দীর মৃত্যু উপন্যাসের রচয়িতা :- তারাশংকর বন্দ্যোপাধ্যায়

৯৮. মুজিব লেনিন ইন্দিরা কাব্যের কবি :- নির্মলেন্দু গুন

৯৯. তোমাকে অভিবাদন হে প্রিয়তমা – কবিতার কবি : শহিদ কাদরী

১০০. কুসুম, চরিত্রটি মানিক বন্দ্যোপাধ্যায় এর কোন উপন্যাসের চরিত্র :- পুতুল নাচের ইতিকথা।

১০১. পঞ্চাশের মন্বন্তর নিয়ে সুকান্ত ভট্টাচার্য কোন কাব্য সংকলন করেন : -আকাল

১০২. জননী সাহসিকা বলা হয় – সুফিয়া কামালকে

১০৩. ‘ মগ্ন চৈতন্য শিস’, নিরন্তর ঘন্টাধ্বনি, কাঠ কয়লা ছবি, কালকেতু ও ফুল্লরা ” – উপন্যাসগুলির রচয়িতা :- সেলিনা হোসেন

১০৪. জন্ডিস ও বিবিধ বেলুন, চাকা, এক্সপ্লোসিড ও মূল সমস্যা — নাটকগুলোর নাট্যকার : সেলিম আল দীন

১০৫. সৈয়দ শামসুল হকের উপন্যাস “নিষিদ্ধ লোবান” অবলম্বনে নির্মিত চলচ্চিত্র :- গেরিলা (নাসিরুদ্দিন ইউসুফ বাচ্চু)

১০৬. শামসুল হকের নাটক “পায়ের আওয়াজ পাওয়া যায়” এর বিষয়বস্তু :- মুক্তিযুদ্ধের সমাপ্তি

১০৭. “আগুন পাখি “- কার রচনা :- হাসান আজিজুল হক।

১০৮.”আনন্দ বেদনার কাব্য ” গল্পগ্রন্থের রচয়িতা :- হুমায়ুন আহমেদ।

 

*** বাংলা সাহিত্য সমাপ্ত ***

Post Writer : পবন খান

৩৭ তম BCS প্রিলি বাংলা সাহিত্য চূড়ান্ত সাজেশন (পর্ব ০১)

প্রসঙ্গ :- ৩৭ তম বিসিএস প্রিলি
বিষয় :- বাংলা সাহিত্য (পর্ব ০১)

 বাংলা সাহিত্য নিয়ে এ টু জেড একটি সাজেশন দেওয়ার চেষ্টা করবো। আশা করছি কমন পড়বে

১. ‘Origin and Development of the Bengali Language ‘ (ODBL) গ্রন্থটি রচনা করেন :- ড. সুনীতি কুমার চট্টোপাধ্যায়।

২. চর্যাপদ আবিষ্কৃত হয় :- ১৯০৭ সালে

৩. চর্যাপদের কোন পদটি খন্ডিত আকারে পাওয়া গেছে :- ২৩নং

৪. ড. মুহম্মদ শহীদুল্লাহর মতে কোন ভাষা থেকে বাংলা ভাষার উদ্ভব হয়েছে :- গোড়ীয় অপভ্রংশ (বঙ্গকামরূপী)

৫. ঢাকায় প্রথম ছাপাখানা প্রতিষ্টিত হয় : ১৮৬০ সালে। (বাংলা প্রেস ” নামক এই ছাপাখানা থেকে ‘নীলদর্পন ‘ প্রকাশিত হয়)

৬. বাংলা লিপির গঠন কার্য শুরু হয় :- সেনযুগে।

৭. ‘আপনা মাংসে হরিণা বৈরী ‘ পংক্তিটির রচয়িতা :- ভুসুকুপা।

৮. শ্রীকৃষ্ণকীর্তন কাব্য আবিষ্কার করেন :- বসন্তরঞ্জন রায়

৯. রবীন্দ্রনাথের মতে শ্রীকৃষ্ণকীর্তন কাব্য কোন ছন্দে রচিত :-পয়ার।

১০. ‘কবি কন্ঠহার’ কার উপাধি:- বিদ্যাপতি

১১. সুখের লাগিয়া এ ঘর বাঁধিনু অনলে পুড়িয়া গেল ” পংক্তির রচয়িতা কে :- জ্ঞানদাস

১২. মধ্যযুগের শ্রেষ্ঠকবি :- মুকুন্দরাম চক্রবর্তী

১৩. ‘নিরঞ্জনের উষ্মা ‘ কার রচনা :- রামাই পন্ডিত

১৪. একটি মঙ্গলকাব্যের কয়টি অংশ থাকে :- ৫টি

১৫. কালকেতু, ফুল্লরা কোন কাব্যের চরিত্র :- চন্ডীমঙ্গল।

১৬. ‘প্রাচীন পন্ডিতগণ গিয়াছেন বায়ে,
যে হৌক, সে হৌক কাব্যরস লয়ে” — চরণদ্বয়ের রচয়িতা :- ভারতচন্দ্র রায়গুনাকর’

১৭. তোহ্ফা ” কার রচনা :- আলাওল।

১৮. মর্সিয়া ‘ শব্দের অর্থ :- শোক বা আহাজারী।

১৯. “জয়নবের চৌতিশা ” গ্রন্থের রচয়িতা :- শেখ ফয়জুল্লাহ

২০. রোমান্টিক প্রণয়োপখ্যান ধারার প্রথম কবি :- শাহ্ মুহাম্মদ সগীর।

২১. ময়মনসিংহ গীতিকা কয়টি ভাষায় অনুদিত হয়েছে :- ২৩ টি।

২৪. Folk শব্দের অর্থ কি :- প্রাকৃতজন।

২৫. বাংলা সাহিত্যে অবক্ষয় যুগের ব্যাপ্তি :- ১৭৬০-১৮৬০

২৬. ফোর্ট কলেজ প্রতিষ্টিত হয় :- ৪মে, ১৮০০

২৭. নিচের কোনটি উইলিয়াম কেরি রচিত গ্রন্থ :- কথোপকথন, ইতিহাসমালা

২৮. “ওরিয়েন্টাল ফেবুলিস্ট” গ্রন্থটি অনুবাদ করেন:- তারিণীচরণ মিত্র

২৯. ফোর্ট উইলিয়াম কলেজের প্রতিষ্টাতা :- লর্ড ওয়ালেসলি।

৩০. বাংলা ভাষায় প্রথম ব্যাকারণ রচনা করেন :- রাজা রামমোহন রায়।

৩১. ইয়ংবেঙ্গলের মুখপাত্র :-জ্ঞানান্বেষণ

৩২. শিখা পত্রিকার সম্পাদক :- আবুল হুসেন(১৯২৭)

৩৩. বাংলা পিডিয়ার সম্পাদক :- সিরাজুল ইসলামম

৩৪. ইশ্বরচন্দ্রকে “বিদ্যাসাগর ” উপাধি প্রদান করে :- সংস্কৃত কলেজ (১৮৪০)

৩৫. ইশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের “প্রভাবতী সম্ভাষণ” কোন ধরনের সাহিত্যকর্ম :- শোক গাঁথা (মৌলিক রচনা)

৩৬. ইশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের ছদ্মনাম :- “বরসন্ধ্র ” বা “কস্যাচিৎ উপযুক্ত ভাইপোস্য”

৩৭. বঙ্গদর্শন ” পত্রিকার সম্পাদক :- বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়

৩৭. বঙ্কিমচন্দ্রের রাজনৈতিক উপন্যাস :- রাজসিংহ

৩৮. “পথিক, তুমি পথ হারাইয়াছ? ” – উক্তিটি কোন উপন্যাসের :- কপালকুন্ডলা

৩৯. মেঘনাদবধ কাব্য কোন রসের কাব্য :- করুনরসের (৯টি সর্গ)

৪০. ‘Blank Verse ‘ শব্দের অর্থ :-অমিত্রাক্ষর (অন্ত্যমিল নেই)

৪১. মদুসূদন দত্তের ‘বীরাঙ্গনা ‘ পত্রকাব্যে কয়টি পত্র রচিত হয়েছে :- ১১ টি।

৪২. ‘বসন্তকুমারী ‘ কার রচিত নাটক :- মীর মোশাররফ হোসেন

৪৩. সভ্যতার সংকট, কালান্তর প্রবন্ধের রচয়িতা :- রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

৪৪. রমেশ, হেমনলিনী, কমলা – রবীন্দ্রনাথের কোন উপন্যাসের চরিত্র :- নৌকাডুবি

৪৫. “শেষের কবিতা ” কি :- কাব্য ধর্মী উপন্যাস।

৪৬. “মরণরে তুঁহুঁ মম শ্যাম সমান “- পদাবলী টির রচয়িতা :- রবীন্দ্রনাথ

৪৭. “বৃষ্টি পড়ে টাপুরটুপুর নদেয় এল বান ” – ছড়াটিকে রবীন্দ্রনাথ কি নামে অভিহিত করেছেন :- “শৈশবের মেঘদূত”

৪৮. রবীন্দ্রনাথের “চতুরঙ্গ ” একটি :- উপন্যাস

৪৯. “জীবনস্মৃতি ” কার আত্মজীবনী :- রবীন্দ্রনাথ

৫০. “পুনশ্চ ” -রবীন্দ্রনাথের কোন ধরনের সাহিত্যকর্ম:- কাব্যগ্রন্থ

৫১.তেল নুন লকড়ী (প্রবন্ধ), সনেট পঞ্চাশৎ (কাব্য), নীললোহিত(গল্পগ্রন্থ), বীরবলের হালখাতা (প্রবন্ধ) – এর রচয়িতা :- প্রমথ চৌধুরী।

Post Writer : পবন খান

৩৭ তম BCS প্রিলি বাংলা সাহিত্য চূড়ান্ত সাজেশন (পর্ব ০২)

English Literature | T,S Eliot

T,S Eliot সম্পর্কে জানব আমরা। মজাই মজাই শিখব। মুখস্ত করতে হবে না ভাই, একবার পড়েই দেখুন।

ts-elliot-Bcs Preli

T,S Eliot

Drama :-
Eliot একটু idiot ছিল।একদিন তিনি রাগ করে COCKTAIL মেরে তার FAMILY এর সদস্যদের MURDER করে দিলেন।

মিলিয়ে নিন:-
Drama:
cocktail – The cocktail Party.
family -the family reunion
murder- murderer in the cathedral.

Poem:
যাইহোক মেরে ফেলার four ঘন্টা পরে ভুল বুঝতে পেরে আর সময় waste করলেন না। সেদিন Wednesday তেই লিখে ফেললেন Hollow Poem নামের একটি কবিতা।

মিলিয়ে নিন:-
four – Four Quarteds.
waste-the waste land
Wednesday -ash Wednesday
hollow -the hollow men
poem-poems